২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৯:৫৩

নলছিটিতে ডিগ্রি পরীক্ষায় নকলে শিক্ষকদের সহায়তার অভিযোগ

ঝালকাঠি প্রতিনিধি

নলছিটিতে ডিগ্রি পরীক্ষায় নকলে শিক্ষকদের সহায়তার অভিযোগ

ঝালকাঠির নলছিটিতে ডিগ্রি পাস ও সার্টিফিকেট কোর্সের দ্বিতীয় বর্ষের পরীক্ষায় চলেছে প্রকাশ্যে নকল উৎসব। হলের মধ্যে বই এবং কাগজের টুকরো বের করে নকল করেছে পরীক্ষার্থীরা। আর এই নকলে সংশ্লিষ্ট শিক্ষকরা সহযোগিতা করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার সরকারি নলছিটি ডিগ্রি কলেজ কেন্দ্রে মোট ২২২ জন পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করছেন। পরীক্ষা শুরুর দিন (১১ সেপ্টেম্বর) থেকেই এই কেন্দ্রে নকল উৎসব চলছে বলে অভিযোগ পাওয়া যায়। বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) ও শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সরেজমিনে ঘুরে এ অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে। দেখা গেছে, প্রতিটা কক্ষেই নকল চলছে, একে অপরের খাতা দেখে লেখালেখির প্রতিযোগিতা করছে। আর এ কাজে সহযোগিতা করছেন প্রতিটি কক্ষের দায়িত্বরত পরিদর্শক ও বহিরাগতরা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক পরীক্ষার্থী জানায়, কতিপয় পরীক্ষার্থী শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত নকল করে পরীক্ষা দিচ্ছে। কেউ বইয়ের পাতায় প্রশ্ন উত্তর ছিড়ে কেন্দ্রে নিয়ে আসছে, আবার কেউ কাগজের টুকরায় উত্তর লিখে এনে পরীক্ষা দিচ্ছে। কেন্দ্র পরিদর্শনে কোনো কর্মকর্তার আগমনের বিষয়টি টের পেয়ে আগেভাগের সাবধান হয়ে যায় ওই পরীক্ষার্থীরা। যে কারণে নকলসহ কেউ ধরা পড়ছে না।

অনুসন্ধানে জানা গেছে, কেন্দ্রে অবাধ নকলের সুযোগ করে দেয়ার জন্য বিভিন্ন পর্যায় সম্মনি প্রদান ও কেন্দ্রে কড়াকড়ি না দেয়ার জন্য ‘ঠান্ডা ফি’ বাবদ টাকা আদায় করেন কেন্দ্র কর্তৃপক্ষ।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করে নলছিটি ডিগ্রি কলেজ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. রফিকুল ইসলাম কবির বলেন, এখানে নকলের কোন সুযোগ নেই। তাছাড়া হলে সার্বক্ষণিক পরীক্ষক এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার প্রতিনিধি দায়িত্ব পালন করছেন।

ওই কেন্দ্রে দায়িত্বপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার প্রতিনিধি আনোয়ার আজীম বলেন, আমরা নকলমুক্ত পরিবেশে পরীক্ষা সম্পন্ন করতে চেষ্টা করছি। এরপরেও কোনো অনিয়ম হলে যথাযথ পদক্ষেপ নেওয়া হবে।


বিডি প্রতিদিন/হিমেল

সর্বশেষ খবর