Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper

শিরোনাম
প্রকাশ : ২০ জুন, ২০১৯ ১৯:৪৪

ব্যতিক্রম ছিলেন সৌম্য সরকার

অনলাইন ডেস্ক

ব্যতিক্রম ছিলেন সৌম্য সরকার

মাশরাফি, মোস্তাফিজ, সাকিব, রুবেল, মিরাজরা ইনিংসের প্রথম ২০ ওভার বল করেও দলকে ব্রেক থ্রু এনে দিতে ব্যর্থ হন। তখন ভয়ঙ্কর হয়ে উঠা ডেভিড ওয়ার্নারসহ তিনজনকে সাঝঘরে ফেরান সৌম্য।

মাঝে মাঝে বোলিং করা জাতীয় দলের ওপেনার সৌম্য সরকার বোলিংয়ে এসেই অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চকে ক্যাচ তুলতে বাধ্য করেন। রুবেলের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরার আগে ৫১ বলে ৫টি চার ও দুই ছক্কায় ৫৩ রান করেন ফিঞ্চ।

এরপর তৃতীয় উইকেটে উসমান খাজাকে সঙ্গে নিয়ে ১৯২ রানের জুটি গড়েন ডেভিড ওয়ার্নার। এই জুটিতেই শতরানের মাইলফলক স্পর্শ করেন অস্ট্রেলিয়ান এ ওপেনার। বিশ্বকাপে তৃতীয় সেঞ্চুরি করার পর একেরপর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে দেড়শ পূর্ণ করেন তিনি। তার ব্যাটে ভর করে রানের পাহাড় গড়ার পুঁজি পায় অস্ট্রেলিয়া।

উইকেটে অনবদ্য ব্যাটিং করে যাওয়া ওয়ার্নারকে শেষ পর্যন্ত সাজঘরে ফেরান সৌম্য সরকার। সৌম্যর বলে বাউন্ডারি হাঁকাতে গিয়ে রুবেলের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ওয়ার্নার। তার আগে ১৪৭ বলে ১৬৬ রান করেন অস্ট্রেলিয়ান এ তারকা ব্যাটসম্যান। দলীয় ৩১৩ রানে আউট হন ওয়ার্নার।

অনবদ্য ব্যাটিং করে যাওয়া অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটার উসমান খাজা সেঞ্চুরির পথেই ছিলেন। কিন্তু সৌম্য সরকার তাকে তৃতীয় শিকারে পরিণত করেন। এর আগে ৭২ বলে ১০টি চারের সাহায্যে ৮৯ রান করেন উসমান। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ৩৮১ রান করে অস্ট্রেলিয়া। 

বিডি প্রতিদিন/২০ জুন, ২০১৯/আরাফাত


আপনার মন্তব্য