৩০ ডিসেম্বর, ২০২২ ০৮:১০

শিজানের সঙ্গে তুনিশার ২৫০ চ্যাটের কথোপকথন ফাঁস

অনলাইন ডেস্ক

শিজানের সঙ্গে তুনিশার ২৫০ চ্যাটের কথোপকথন ফাঁস

তুনিশা শর্মা (বামে) ও শিজান খান

অভিনেত্রী তুনিশা শর্মার মৃত্যুর পাঁচ দিন পর সিরিয়ালের সেট থেকে উদ্ধার হল একটি চিরকুট। যাতে লেখা, “আমাকে সহ-অভিনেত্রী হিসেবে পাওয়া ওর সৌভাগ্য।”

সেই কাগজে তুনিশার নাম তো ছিলই, তার প্রাক্তন প্রেমিক শিজান খানেরও নাম ছিল।

যা দেখে তদন্তকারীদের অনুমান, তুনিশা তার প্রেমিকের সম্পর্কেই এমন মন্তব্য করেছিলেন। সেই চিরকুট হাতে পেয়ে অভিনেত্রীর মৃত্যুরহস্য আরও খতিয়ে দেখছেন পুলিশকর্তারা।

‘আলিবাবা: দাস্তান-এ-কাবুল’ সিরিয়ালের শুটিং চলছিল। নায়ক-নায়িকা ছিলেন শিজান আর তুনিশা। সেই ধারাবাহিকের সেটেই নিজেকে শেষ করে দেন তুনিশা। জানা গেছে, ঘটনার কিছুক্ষণ আগেই তুনিশা আর শিজানকে মেকআপ রুমের ভিতরে কথা বলতে দেখা গিয়েছিল। কোনও কিছু নিয়ে তর্কাতর্কি চলছিল তাদের মধ্যে। দু’জনকেই উত্তেজিত দেখাচ্ছিল। তার ১৫ মিনিটের মধ্যেই চরম সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন অভিনেত্রী। বাথরুমে ঢুকে দরজা বন্ধ করে গলায় ফাঁস দেন। পুলিশও এমনটিই জানিয়েছে।

এছাড়াও, তাদের কথোপকথনের ২৫০টি হোয়াটসঅ্যাপ পেজ বের করেছেন তদন্তকারীরা। সব চ্যাট খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সেসবই নাকি তড়িঘড়ি ডিলিট করে দেওয়া হয়েছিল।

প্রেমের সম্পর্ক ভাঙার ১৫ দিন পর গত ২৪ ডিসেম্বর সিরিয়ালের সেটে ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার হয় ২০ বছরের তুনিশার। সহকর্মীরা জানান, শুটিংয়ের বিরতির সময় বাথরুমে ঢুকে নিজেকে শেষ করে দেন অভিনেত্রী। তাকে হাসপাতালে নিয়ে গেলেও বাঁচানো যায়নি। 

এদিকে কন্যার মৃত্যুকে ‘আত্মহত্যা’ বলতে রাজি নন মা। তুনিশার সহ-অভিনেতা শিজানের বিরুদ্ধে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগ তোলেন তিনি। তার দাবি, মাদক সেবন করতেন অভিনেতা। আরও একাধিক নারীর সঙ্গে সম্পর্কে থেকে তুনিশাকে ঠকিয়েছেন বলেও অভিযোগ করেছেন তিন। শুধু তা-ই নয়, তুনিশাকে বিয়ের প্রস্তাবও নাকি দিয়েছিলেন শিজান। তুনিশার মায়ের অভিযোগের ভিত্তিতেই পুলিশ গ্রেফতার করেছিল শিজানকে।

কেন বিচ্ছেদ করেছিলেন তুনিশার সঙ্গে? এমন প্রশ্নের উত্তরে প্রতিবারই ভিন্ন বয়ান দিয়েছেন শিজান। বুধবার শেষরাতে পুলিশ অফিসারের প্রশ্নের মুখে হাউহাউ করে কাঁদতে দেখা যায় তাকে। শিজানের দাবি, দু’জনের বয়সের ফারাক অনেকটাই ছিল, যা পরিবার মেনে নেবে না। তাই বিচ্ছেদের রাস্তা নিয়েছিলেন।

বিডি প্রতিদিন/কালাম

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর