শিরোনাম
প্রকাশ : ৯ এপ্রিল, ২০২০ ১৩:৩৬

করোনা প্রতিরোধে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন নিয়ে কিছু তথ্য

ডা. শুভাগত চৌধুরী

করোনা প্রতিরোধে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন নিয়ে কিছু তথ্য

ম্যালেরিয়ার ওষুধ হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন কি করোনাতে কার্যকর? আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এর পক্ষে দাঁড়িয়েছেন। যদিও আমেরিকার স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বার বার বলছেন, করোনার বিরুদ্ধে এর কার্যকারিতার কোন প্রমাণ নেই। অনেকের ধারণা, আমেরিকাবাসীর বিধ্বস্ত মনে কিঞ্চিৎ আশার আলো জ্বালাবার চেষ্টা তার।

হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন একটি প্রেসক্রিপশন ড্রাগ দশক অধিককাল আগে ম্যালেরিয়ার ওষুধ হিসেবে এর অনুমোদন দেওয়া হয়েছিল। রিউমাটয়েড আর্থরাইটিস (rheumatoid arthritis) আর লুপাসের বিরুদ্ধেও একে প্রয়োগ করা হয়।

কেন হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনকে সম্ভাব্য চিকিৎসা হিসাবে গণ্য করা হল?
করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে এর কিছু প্রতিরোধ ক্ষমতা দেখা গেলেও টেস্ট টিউব আর পেট্রিডিশে যা দেখা যায় মানব শরীরে তা কার্যকর নাও হতে পারে।
চীন আর ফ্রান্সে কিছু বিজ্ঞানী হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন আর এর সঙ্গে এন্টিবায়োটিক এজিথ্রমাইসিন সমন্বয়ে দিয়ে কিছু ফল পেয়েছেন। কিন্তু গবেষণা ছিল ছোট নমুনার মধ্যে। আর এর সঙ্গে কন্ট্রোল গ্রুপ ঠিক ঠাক ছিল না। অনেকের ধারনা হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন ইমিউন সিস্টেমের অতি প্রতিক্রিয়ার সাইটকিন ঝড় আটকাতে পারে। তবে এর পক্ষে প্রমাণ জোরালো নয়।

ওষুধটি কি সুরক্ষা দিতে পারে করোনার বিরুদ্ধে?
প্রমাণ নেই। মিনেসটা বিশ্ববিদ্যালয়য়ের বিজ্ঞানীরা পরীক্ষা নিরীক্ষা করে দেখছেন।

এফডিএর অনুমোদন আছে?
এফডি এর অনুমোদন আছে ম্যলেরিয়া, রিউমাটয়েড আর্থরাইটিস আর লুপাসের বিরুদ্ধে দেওয়ার জন্য, কভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে দেওয়ার জন্য নয়।

এরপরও কিছু হাসপাতালে দেওয়া আছে যেহেতু প্রমাণিত চিকিৎসা নেই যদি কাজে লাগে এমন এক কাল্পনিক ধারনা থেকে।

ওষুধটি কি বিপজ্জনক হতে পারে?
কিছু পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া আছে। যাদের হৃদযন্দে চ্যুতি, তাদের দেওয়া বিপজ্জনক। যাদের চোখের রেটিনা, লিভার আর কিডনি রোগ এদের দিলে বিপদ। অন্যান্য প্রতিক্রিয়া বমি, মেজাজ পরিবর্তন, তরল মল, স্কিন র‌্যাশ। গুরুতর করোনা রোগীর জন্য নিরাপদ নয়। এতে দেহ যন্ত্র নষ্ট হতে পারে।

(ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)

বিডি প্রতিদিন/ফারজানা


আপনার মন্তব্য