শিরোনাম
প্রকাশ : ৯ মে, ২০২১ ২১:৫৪
আপডেট : ৯ মে, ২০২১ ২২:৩৬
প্রিন্ট করুন printer

মমতার মন্ত্রিসভায় একঝাঁক নতুন মুখ

দীপক দেবনাথ, কলকাতা:

মমতার মন্ত্রিসভায় একঝাঁক নতুন মুখ
সংগৃহীত ছবি
Google News

বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে পশ্চিমবঙ্গে ক্ষমতায় এসেছে মমতা ব্যানার্জির নেতৃত্বে তৃণমূল কংগ্রেসের সরকার। গত বুধবারই তৃতীয়বারের জন্য রাজ্যটির মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নিয়েছেন মমতা। যদিও করোনার আবহে জমায়েত এড়াতে ২০১১ ও ২০১৬ সালের মতো এবার মমতার সাথেই মন্ত্রিসভার সদস্যরা শপথ নেননি। আর ঠিক একই কারণে পরপর দুই দিন বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার বিধানসভায় শপথ নেন আরও একাধিক বিধায়ক। 

স্বাভাবিক ভাবেই এবার নতুন মন্ত্রিসভা গঠনের পালা। নতুন মন্ত্রিসভায় কারা জায়গা পাচ্ছেন ইতিমধ্যেই তা চূড়ান্ত হয়ে গিয়েছে। মোট ৪৩ জন বিধায়ক মন্ত্রী হিসাবে শপথ গ্রহণ করবেন। এর মধ্যে ক্যাবিনেট (পুর্ণ মন্ত্রী) মন্ত্রী হিসাবে শপথ নেবেন ২৪ জন, স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী হিসাবে শপথ নেবেন ১০জন, আর প্রতিমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেবেন ৯ জন। কোভিড স্বাস্থ্য বিধি মেনেই সোমবার সকাল ১০.৪৫ মিনিটে রাজভবনের থ্রোন হলে শপথ নেবেন মমতার মন্ত্রিসভার সদস্যরা। 

রীতি অনুযায়ী পশ্চিমবঙ্গের মন্ত্রিসভার সদস্য সর্বাধিক ৪৪ জন হতে পারে। সেই অর্থে মমতা ব্যানার্জিকে নিয়ে তৃতীয় মন্ত্রিসভায় পুরোনো ও নতুন মুখ মিলিয়ে থাকছেন মোট ৪৪ জন। 

ক্যাবিনেট (পূর্ণ মন্ত্রী) মন্ত্রী: 
সুব্রত মুখার্জি, পার্থ চ্যাটার্জি, অমিত মিত্র, সাধন পান্ডে, জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, মানস ভুঁইয়া, অরূপ বিশ্বাস, শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়, মলয় ঘটক, ফিরহাদ হাকিম, ব্রাত্য বসু, শশী পাঁজা, জাভেদ আহমেদ খান, সিদ্দিকুল্লা চৌধুরী, চন্দ্রকান্ত সিনহা, উজ্জ্বল বিশ্বাস, সৌমেন মহাপাত্র, বঙ্কিম চন্দ্র হাজরা, অরূপ রায়, পুলক রায়, মহ: গোলাম রাব্বানি, বিপ্লব মিত্র, স্বপন দেবনাথ, রথীন বিশ্বাস।

স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী: 
ইন্দ্রনীল সেন, সুজিত বসু, বেচারাম মান্না, সুব্রত সাহা, হুমায়ুন কবীর, অখিল গিরি, চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য, রত্না দে নাগ, সন্ধ্যারানী টুডু, বুলু চিক বরাইক। 

প্রতিমন্ত্রী: 
দিলীপ মন্ডল, আখরুজ্জামান, শিউলি শাহা, শ্রীকান্ত মাহাতো, সাবিনা ইয়াসমিন, বীরবাহা হাঁসদা, জ্যোৎস্না মান্ডি, পরেশ চন্দ্র অধিকারী ও মনোজ তিওয়ারি। 

গত মন্ত্রিসভার একাধিক সিনিয়র ও অভিজ্ঞ মন্ত্রীরা এবারও মন্ত্রী হচ্ছেন। যাদের মধ্যে অন্যতম অমিত মিত্র, শোভনদেব ভট্টাচার্য, সুব্রত মুখার্জি, অরূপ বিশ্বাস, জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, পার্থ চ্যাটার্জি, ফিরহাদ হাকিম প্রমুখ। আবার বেশ কিছু নতুন মুখের সংযোজন হয়েছে-যাদের মধ্যে অন্যতম মানস ভুঁইয়া, মনোজ তিওয়ারি, বীরবাহা হাঁসদা, হুমায়ুন কবীর, অখিল গিরি, রত্না দে নাগ, বালু চিক বারিক, শিউলি সাহা প্রমুখ। এর মধ্যে এবারই প্রথমবারের মতো নির্বাচনে জিতে মন্ত্রিসভায় জায়গা পেয়েছেন সাবেক আইপিএস কর্মকর্তা হুমায়ুন কবীর, সাবেক ক্রিকেটার মনোজ তিওয়ারি, অখিল গিরির মতো বিধায়করা। 

এবারের মন্ত্রিসভায় মমতা ব্যানার্জিকে নিয়ে নারী মুখ ৯ জন। এর মধ্যে ক্যাবিনেটে রয়েছেন মমতা ও ডা. শশী পাঁজা। বাকিরা প্রতিমন্ত্রী ও স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী।
এবারে নির্বাচনে মুসলিমরা ঢেলে ভোট দিয়েছেন তৃণমূলকে, ফলে তাদেরও গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। ৭ জন মুসলিম বিধায়কের মধ্যে ক্যাবিনেটে জায়গা পেয়েছেন ৪ সাবেক মন্ত্রী। বাকিদের মধ্যে একজন স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত, দুইজন প্রতিমন্ত্রী। 

রবিবার বিকালে ৪৩ জনকেই ফোন করে শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। তবে কে কোন মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পাবেন তা এখনও জানা যায়নি। যদিও এবারের মন্ত্রিসভার তালিকায় চমক অমিত মিত্রের নাম। বিদায়ী মন্ত্রিসভায় অর্থমন্ত্রণালয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করলেও শারীরিক অসুস্থতার কারণে একুশের নির্বাচনে তিনি প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেননি। ফলে মন্ত্রী হিসাবে শপথ নিলে আগামী ছয় মাসের মধ্যে যে কোনও একটি বিধানসভা কেন্দ্র থেকে তাকে জিতে আসতে হবে। সূত্রে খবর এবারও তাকে অর্থমন্ত্রণালয়ের দায়িত্বই দেওয়া হতে পারে। তবে অসুস্থ থাকার কারণে রাজভবনে শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে তিনি উপস্থিত থাকতে পারবেন না বলেই খবর, সেক্ষেত্রে ভার্চুয়াল মাধ্যমেই শপথ নেবেন তিনি।  

গতবারের মতোই মমতা এবারও স্বরাষ্ট্র ও স্বাস্থ্য নিজের হাতেই রাখবেন বলে মনে করা হচ্ছে। যদিও কাজের অগ্রগতির জন্য দুইটি মন্ত্রণালয়েই একজন করে প্রতিমন্ত্রী রাখতে পারেন মমতা। 

 

বিডি প্রতিদিন/আরাফাত/হিমেল

এই বিভাগের আরও খবর