শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ জুন, ২০২১ ০০:০২

হোটেলের তথ্য ফরম চেনাল খুনিকে

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম

Google News

ছয় বছরের শিশু সন্তানকে রেখে পল্লব বর্মণের হাত ধরে নিরুদ্দেশ হন গাজীপুরের সিঙ্গাপুর প্রবাসীর স্ত্রী মিমি আকতার। নাম ঠিকানা গোপন করে চট্টগ্রাম নগরীর পাহাড়তলীর সরাইপাড়া এলাকায় বসবাস শুরু করেন দুজন। কিন্তু মাত্র আড়াই মাসের মাথায় কথিত স্বামীর হাতে খুন হন মিমি। খুনের পর প্রায় তিন মাস তার লাশ ছিল অজ্ঞাত হিসেবে। চট্টগ্রামের পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)’র মামলার তদন্তভার পাওয়ার পর ‘বেওয়ারিশ মিমি’র পরিচয় নিশ্চিতের পাশাপাশি গ্রেফতার করে পল্লব বর্মণকে।  গতকাল এ হত্যা মামলার চার্জশিট আদালতে প্রেরণ করে সিআইডি। সিআইডি পুলিশ সুপার শাহনেওয়াজ খালেদ বলেন, ‘এক মাস আগে এ হত্যা মামলার তদন্তভার পায় সিআইডি। এ সময়ের মধ্যে লাশ পরিচয় শনাক্ত ও আসামি গ্রেফতার করা হয়। একই সঙ্গে চার্জশিটও দেওয়া হয়েছে।’ তিনি বলেন, ‘অজ্ঞাতনামা নারীর অর্ধগলিত লাশের মামলাটি তদন্তের শুরুতে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তা নেওয়া হয়। লাশের পাশে পাওয়া হোটেল তথ্য ফরম মামলার প্রথম ক্লু দেয়। এরপর লাশের পরিচয় চিহ্নিত করার পাশাপাশি আসামিকে গ্রেফতার করা হয়।’

এই বিভাগের আরও খবর