বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ টা

ক্ষুদ্র ঋণের আড়ালে ভয়ানক প্রতারণা

নিজস্ব প্রতিবেদক

ক্ষুদ্র ঋণের নামে প্রতারণার অভিযোগে দুজনকে আটক করেছে র‌্যাব। তারা ব্যাংকের চেকের পাতায় স্বাক্ষর রেখে কৌশলে কয়েক লাখ টাকা আদায়ের চেষ্টা করতেন। সোমবার রাতে রাজধানীর পল্লবীর বাউনিয়াবাঁধ এলাকা থেকে মোহর আলী মোহন ও সোমা আক্তারকে গ্রেফতার করা হয়। গতকাল র‌্যাব-৪ এর পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, বাউনিয়াবাঁধ এলাকায় ‘যুব সমাজ একতা বহুমুখী সমবায় সমিতি’ এবং ‘ঢাকাস্থ শরীয়তপুর শ্রমজীবী সমবায় সমিতি লিমিটেড’ নামে দুটি প্রতিষ্ঠান বানিয়ে মোহন প্রতারণার ফাঁদ খুলে বসেন। সমিতির সদস্য বানিয়ে সোমা আক্তারকে প্রতারণার কাজে ব্যবহার করা হতো। এক পানের দোকানি ২০ হাজার টাকা এ সমিতির কাছ থেকে ঋণ নিয়েছিলেন। এ সময় তার কাছ থেকে মোহন ফাঁকা স্ট্যাম্পে এবং ব্যাংকের চেকের পাতায় স্বাক্ষর নিয়ে রেখে দেন।

পরে তার কাছ থেকে ১ লাখ টাকা আদায় করেন এবং কিছুদিন পর তার কাছে ৬ লাখ টাকা চান। এ ৬ লাখ টাকা না দেওয়ায় ফাঁকা স্ট্যাম্প এবং চেক বইয়ে নিজেদের মতো অঙ্ক বসিয়ে ৬ লাখ টাকা দাবি করেন। পরে ওই পান দোকানি মোহনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। একইভাবে স্ট্যাম্প এবং চেকের পাতা রেখে স্থানীয় এক নারীকে ২ লাখ ৩০ হাজার টাকা ঋণ দেন মোহন। কিছু দিন পর ওই নারীর কাছে ১৪ লাখ টাকা দাবি করা হয় বলে জানায় র‌্যাব।

র‌্যাব জানায়, নিম্ন আয়ের মানুষের এবং তাদের সরলতার সুযোগ নিয়ে নানা ধরনের অপরাধ করে আসছিলেন মোহন। তার এসব কাজে সোমা সহায়তা করতেন। ওই দুই সমিতির প্রায় ৬ হাজার গ্রাহক রয়েছেন। সবার কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে।

সর্বশেষ খবর