শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ২৩:৫২

জেলার পর উপজেলায়ও আসছে নতুনের হাওয়া

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া

জেলার পর উপজেলায়ও আসছে নতুনের হাওয়া

বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগে নতুন নেতৃত্ব পাওয়ার পর এবার উপজেলায়ও নতুনের হাওয়া বইতে শুরু করেছে। আগামী মার্চের মধ্যে উপজেলা পর্যায়ে কমিটি গঠনের ঘোষণার পর থেকে নড়েচড়ে বসেছেন নেতা-কর্মীরা। পদ পেতে শুরু করেছেন লবিং। নিজ নিজ এলাকায় আওয়ামী লীগের ব্যানারে কর্মসূচি বাড়িয়ে দিয়ে নিজের কর্ম পরিচয় তুলে ধরছেন অনেকে। সময় যত এগিয়ে আসছে উপজেলা আওয়ামী লীগে ততই নতুনের সুবাস ছড়াচ্ছে। বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক আসাদুর রহমান দুলু জানান, কেন্দ্রীয় নির্দেশনা মতে, ১১ মার্চ দুপচাঁচিয়া, ১৩ মার্চ শাজাহানপুর, ১৪ মার্চ শিবগঞ্জ, ১৫ মার্চ নন্দীগ্রাম, ২৫ মার্চ শেরপুর, ২৮ মার্চ কাহালু, ২৯ মার্চ গাবতলী, ৩০ মার্চ আদমদীঘি ও ৩১ মার্চ বগুড়া সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনের দিন ঘোষণা করা হয়েছে। তিনি জানান, গত ডিসেম্বর মাসে বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের গঠিত কমিটিতে চমক পান নেতা-কর্মীরা। সেই চমকে প্রথমবারের মতো জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু ও সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পান রাগেবুল আহসান রিপু। ৯ উপজেলায়ও নেতা-কর্মীরা এবার নতুন নেতৃত্ব চাইছেন। উপজেলা পর্যায়ের কমিটিতে যারাই নেতৃত্বে আসুক তারা যেন নতুন নেতৃত্ব হয়। দলের জন্য নিবেদিত, কর্র্মীদের প্রতি মূল্যায়ন, ইউনিয়ন পর্যায়ে নেতাকর্মীদের সঙ্গে যাদের সখ্যতা ভাল তাদের মধ্যে থেকে পরিষ্কার ইমেজের নেতা চাইছে তৃণমূল। বগুড়া আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু বলেন, ‘সংগঠনকে শক্তিশালী করার বিকল্প নেই। তৃণমূল পর্যায় থেকে সংগঠনকে ঢেলে সাজাতে হবে। তৃণমূলই আওয়ামী লীগের মূল শক্তি। ওয়ার্ড, ইউনিয়ন পর্যায়ে শক্তিশালী সাংগঠনিক কাঠামো থাকলে ধর্মান্ধ গোষ্ঠী মানুষকে বিপথগামী করার সুযোগ পাবে না।’ সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু জানান, ৯ উপজেলায় সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে। উপ-নির্বাচনের কারণে সারিয়াকান্দি ও সোনাতলার সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা করা হয়নি। তিনি বলেন, ‘সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকা- মানুষের মধ্যে প্রচার করতে হবে। সমাজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণে সরকারকে সহযোগিতা করতে হবে।’


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর