শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৪ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ মার্চ, ২০২১ ০০:১৩

নাটোরে কৃষিজমিতে চলছে পুকুর খনন

নাটোর প্রতিনিধি

নাটোরে কৃষিজমিতে চলছে পুকুর খনন

বড়াইগ্রাম উপজেলায় কৃষিজমিতে অবাধে পুকুর খনন চলছে। এতে নষ্ট হচ্ছে কৃষিজমি, রাস্তার ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে মাটি বহনকারী ট্রাক্টরে। দ্রুত এর অবসান না হলে জলাবদ্ধতাসহ পরিবেশে বিরূপ প্রভাব পড়ার আশঙ্কা করছেন কৃষিসংশ্লিষ্টরা। তবে উপজেলা প্রশাসনের দাবি, পুকুর খনন বন্ধে জোর চেষ্টা চালাচ্ছেন তারা। সরেজমিন দেখা যায়, বড়াইগ্রামের গোপালপুর ইউনিয়নের গোপালপুর খাঁপাড়ায় মোস্তাক হোসেন দীর্ঘদিনের পুরনো খাল দখল করে এক্সকেভেটর দিয়ে পুকুর কাটছেন। একই সঙ্গে পাশের তিন ফসলি প্রায় ৫ বিঘা জমিতেও পুকুর খনন করাচ্ছেন। একই ইউনিয়নের অর্জুনপুরের শাহজাহান আলী তার ৫ বিঘা জমিতে পুকুর কাটাচ্ছেন। এসব পুকুরের মাটি যাচ্ছে পাশের একটি ইট ভাটায়। চান্দাই ইউনিয়নের কৃষ্ণপুর গ্রামে ৬ বিঘা জমিতে পুকুর খনন করা হচ্ছে। একই ইউনিয়নের আকবর মোড়ে আলমের ইট ভাটার পেছনে মাহতাব উদ্দিনের ১০ বিঘা জমিতে পুকুর খনন করা হচ্ছে। জোনাইল বাগবাচ্চা বিলের প্রায় ১২ বিঘা জমিতে পুকুর কাটাচ্ছেন লোকমান হোসেন। একইভাবে বড়াইগ্রাম ইউনিয়নের চড়ুইকোলে মাটি কাটার ঠিকাদার হায়দার আলীও বাদ যাননি।

, মানিকপুরে রেজাউল করিম, রাজাপুরে আবদুল খালেক ও উপলশহর কিলিকমোড়ে আবদুল আজিজ তিন ফসলি জমিতে পুকুর কাটিয়ে বাইরে মাটি বিক্রি করছেন।

একই ভাবে আটঘরিয়া, ভবানীপুর, কামারদহ, মহানন্দগাছাসহ বিভিন্ন এলাকায় চলছে অবাধে পুকুর খনন। কোথাও এক্সকেভেটর, কোথাও শ্রমিক দিয়ে পুকুর কাটিয়ে এসব মাটি বিক্রি হচ্ছে বিভিন্ন ইট ভাটায়। মাটি বহনে পাকা-কাঁচা সড়ক ব্যবহার করছে ট্রাক্টর। এতে ক্ষতি হচ্ছে রাস্তার, ঘটছে দুর্ঘটনা, নষ্ট হচ্ছে পরিবেশ। ট্রাক্টর মালিকদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, প্রতি গাড়ির মাটি বিক্রি হচ্ছে ৮০০ থেকে হাজার টাকায়। সেই সঙ্গে গাড়িগুলো চালাতে দেখা যায় অপ্রাপ্তবয়স্ক চালকদ্বারা। যাদের বয়স ১৫-২০-এর মধ্যে। এদের কোনো ড্রাইভিং লাইসেন্স বা গাড়ি চালানোর বৈধ কাজ কাগজপত্র নেই। এ ছাড়া অনেকেই ভিটেমাটিতে করা আম, লিচু, কাঁঠাল বাগান কেটে সাময়িক লাভের আশায় পুকুর খনন করাচ্ছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ‘উপজেলার বিভিন্ন জায়গায় কৃষিজমিতে খনন বন্ধে পুকুর মালিকসহ গাড়ির চালককে বিভিন্ন মেয়াদে জেল-জরিমানা করা হচ্ছে এবং গাড়ির ব্যাটারি জব্দ করা হয়েছে। কৃষিজমিতে কাউকে পুকুর খনন করতে দেওয়া হবে না।’


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর