শিরোনাম
শনিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:০০ টা

সেতুর অভাবে ভোগান্তিতে দুই উপজেলার মানুষ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি

সেতুর অভাবে ভোগান্তিতে দুই উপজেলার মানুষ

ওপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নাসিরনগর উপজেলার সর্ববৃহৎ প্রাচীন বাজার চাতলপাড়। এপারে একই জেলার সরাইল উপজেলার সর্ববৃহৎ বাজার অরুয়াইল। মাঝখান দিয়ে যাওয়া কান্তার খাল বিছিন্ন করে রেখেছে দুই উপজেলাকে। প্রতিদিন দুই থেকে আড়াই হাজার মানুষ এই খাল পাড়ি দিয়ে চলাচল করেন। খালটিতে সেতু নির্মাণের জন্য এলাকাবাসী দীর্ঘদিন ধরে দাবি জানালেও সুফল মেলেনি। বাধ্য হয়ে যুগের পর যুগ খেয়া নৌকায় খাল পারাপার হতে হচ্ছে। সরাইল উপজেলার অরুয়াইল ইউপি চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন বলেন, সেতুর অভাবে দুই উপজেলার মানুষ সীমাহীন দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন। কয়েক বছর আগে এই খালে একটি সেতু নির্মাণ করা হয়েছিল। দুই পাড়ে সংযোগ সড়ক না থাকায় এটি কাজে আসেনি। ধীরে দীরে সেতুটি ভেঙে গেছে। নাসিনগরের চাতলপাড় ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম বলেন, সরাইল ও নাসিনগর পাশাপাশি হওয়ায় এক উপজেলার মানুষ অন্য উপজেলা হাট-বাজার ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যান। এ ছাড়া দুই উপজেলায় আত্মীয়-স্বজনও রয়েছে। খালে সেতু না থাকায় লক্ষাধিক মানুষ ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন। রাতে কেউ অসুস্থ হলে হাসপাতালে নেওয়া যায় না। কারণ তখন খেয়াঘাটে নৌকা থাকে না। খেয়া ভাড়ার অভাবে অনেক বাচ্চা স্কুল কামাই দিচ্ছে। স্থানীয়রা জানান, চাতলপাড় বাজারের আশপাশের অর্ধশতাধিক গ্রাম নাসিনগর উপজেলার অন্তর্ভুক্ত হলেও এগুলো উপজেলা সদর থেকে অন্তত ২০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। এসব গ্রামের মানুষ খালের ওপারে সরাইল উপজেলার অরুয়াইল বাজারে বেশি যান। শিক্ষা-চিকিৎসা সেবাও নেন সরাইলে। নাসিনগর উপজেলার চাতলপাড় গ্রামের কামাল হোসেন বলেন, জীবনে সেতু দেখতাম পারমু কি না, সন্দেহ আছে। ভাটি এলাকার দুই উপজেলাবাসী চরম কষ্টে আছি। দুই পাশে রাস্তা আছে সেতু নেই। কান্তার খালে এসে আটকে যাই। নৌকা দিয়ে পাড় হতে হয়। সরাইল উপজেলার ধামাউড়া গ্রামের খোদেজা জানান, আবহাওয়া খারাপ হলে খালে নৌকা থাকে না। তখন খাল দিয়ে অন্য নৌকা গেলে ডেকে এনে দ্বিগুণ ভাড়া দিয়ে পার হতে হয়। ভাড়ায়চালিত মোটরসাইকেল চালক সুজন বলেন, কান্তার খালে সেতু না থাকায় আমরা ধামাউড়া পূর্বপাড়া পর্যন্ত মোটরসাইকেল যাত্রী নিয়ে যাই। পরে যাত্রীরা নৌকায় খাল পার হয়ে ওপাড়ে গিয়ে মোটরসাইকেলে নাসিরনগরের চাতলপাড় বাজার ও বিভিন্ন গ্রামে যান।

সর্বশেষ খবর