শিরোনাম
প্রকাশ : ১৪ মার্চ, ২০২১ ০৩:০৬
প্রিন্ট করুন printer

হবিগঞ্জে বিষ প্রয়োগে হাঁস নিধনের অভিযোগ

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি:

হবিগঞ্জে বিষ প্রয়োগে হাঁস নিধনের অভিযোগ

হবিগঞ্জ সদর উপজেলার তিতখাই-কাশিপুর গ্রামের আব্দুল ওয়াহাব নামে এক কৃষকের ১ হাজার একশ হাঁস বিষ প্রয়োগ করে মেরে ফেলেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। এ ঘটনা নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। 

স্থানীয়রা জানায়, তিতখাই-কার্শিপুর গ্রামের হাজী সাবাস আলী মিয়ার ছেলে মো. আব্দুল ওয়াহাব দীর্ঘদিন ধরে পাতি হাঁসের খামার করে আসছেন। হাঁসগুলো হাওরে আসা-যাওয়া নিয়ে একই গ্রামের মৃত আবুল হোসেনের ছেলে তোরাব আলী গংদের সাথে বিরোধ সৃষ্টি হয়। এই বিরোধের জের ধরেই শনিবার বিকেলে ৫টার দিকে তার হাসের খামারে তোরাব আলী তার ছেলে সাইদুল ইসলামসহ তাদের পক্ষের ৫/৬ লোকজন বিষ প্রয়োগ করে যায়। বিষ প্রয়োগ ছটফট করতে করতে সন্ধ্যার পর থেকেই হাসগুলো একের পর এক মারা যায়। 

এ খবর পেয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল গণি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। 
এ ব্যাপারে হাসের খামারে মালিক মোঃ আব্দুল ওয়াহাব জানান, তার খামারের হাঁসগুলো হাওরে নিয়ে যাওয়ার নিয়ে একই গ্রামের তোরাব আলী গংদের সাথে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। এ জের ধরে শনিবার সকালে তোরাব আলীর সাথে ঝগড়া হয়। এ সময় তোরাব আলী আমার খামারে হাসঁ রাখবে বলে হুমকি দেয়। এ জের ধরে ধরে খামারের হাঁসের খাবারের সাথে বিষ দিয়ে যায়। বিষ দেয়ার দৃশ্যটি আমার পরিবারের লোকজন দেখে ফেলেন। হাঁসগুলো মারা যাওয়ার পর নিশ্চিত হন খাবারের সাথে বিষ দিয়ে হাঁসগুলো মেরে ফেলা হয়েছে। 
তিনি বলেন, আমার খামারে ২ হাজার হাঁসর মধ্যে ১ হাজার ১শ হাঁস মারা গেছে। বাকি হাঁসগুলো বিষের যন্ত্রণায় ছটফট করছে। সেগুলো মারা যাওয়ার আশংকা রয়েছে। তিনি এ ব্যাপারে হবিগঞ্জ সদর মডেল থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। 

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর