শিরোনাম
প্রকাশ : ১৬ মে, ২০২১ ২০:৫১
প্রিন্ট করুন printer

আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহতের ঘটনায় গ্রেফতার ১

নরসিংদী প্রতিনিধি:

আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহতের ঘটনায় গ্রেফতার ১
Google News

নরসিংদীর রায়পুরায় আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে একজন নিহতের ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। রবিবার বিকেলে নিহতের ভাই মো: মোসলেম মিয়া বাদী হয়ে রায়পুরা থানায় ২০ জনকে আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। এঘটনায় জালাল নামে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। 

পুলিশ জানিয়েছে, আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দীর্ঘ দিন যাবৎ রায়পুরা উপজেলার চরাঞ্চল চাঁনপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি মোসলেম উদ্দিন সর্মথক ও ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি হযরত আলীর সর্মথকদের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিলো। ঈদের পর চলমান বিরোধ নিষ্পত্তি হওয়ার কথা থাকলেও কথা কাটাকাটির জের ধরে শনিবার দুপুরে উভয় গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। ওই সময় সংঘর্ষে টেঁটা বিদ্ধ হয়ে ফায়েজ উল্লাহ গুরুতর আহত হয়। পরে তাকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মারা যান। এ সময় দুই গ্রুপের সংর্ঘষে আরও ৩০ জন আহত হয়েছে। নিহত ফায়েজ উল্লাহ মাঝেরচর গ্রামের জরুন মিয়ার ছেলে। সে চাঁনপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি হযরত আলীর সর্মথক।

রায়পুরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. আবু সাইদ মো. ফারুক জানান, ফায়েজ উল্লাহ নামে একজনকে টেঁটাবিদ্ধ অকস্থায় নিয়ে আসা হয়। তাকে আমরা মৃত অবস্থায় পেয়েছি। আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গুরুতর আহত হক শাহ মিয়া (৫০), আসাদ মিয়া, বিল্লাল মিয়া, মস্তো মিয়াসহ টেঁটাবিদ্ধ ৩ জনকে মুর্মূষু অবস্থায় নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

রায়পুরা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা জানান, নিহতের ঘটনায় ২০ জনের নাম উল্লেখ করে ও অঞ্জাতনামা আরো ১৫/২০ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। এরই প্রেক্ষিতে একজনকে গ্রেপ্তার করে কারাগারে প্রেরন করা হয়েছে। 

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 

এই বিভাগের আরও খবর