শিরোনাম
প্রকাশ : ৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০৩:৪৬
প্রিন্ট করুন printer

পাবনায় ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ দেখতে মানুষের ঢল

পাবনা প্রতিনিধি:

পাবনায় ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ দেখতে মানুষের ঢল
Google News

পাবনার আটঘরিয়া উপজেলার চিকনাই নদীতে উৎসবমুখর পরিবেশে হয়ে গেলো গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা। রং বে-রঙের বাহারি নৌকা নিয়ে বাইচালরা অংশগ্রহণ করেন প্রতিযোগিতায়। শুক্রবার বিকেলে অনুষ্ঠিত এ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন পাবনার পুলিশ সুপার মহিবুল ইসলাম খান। নদীর দুই পাড়ের হাজার হাজার মানুষ নৌকা বাইচ উপভোগ করেন। গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যকে ধরে রাখতে আগামীতেও এ প্রতিযোগিতা আয়োজন করা হবে বলে জানালেন আয়োজকরা।

চিকনাই নদীতে সকাল থেকেই বাদ্যের তালে তালে নানা সাজে সজ্জিত হয়ে জড়ো হতে থাকে ছোট বড় বাহারি সব নৌকা। দুপুরের পর শুরু হয় নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা। নদীর পানিতে ছলাৎ ছলাৎ শব্দে বাইচালদের বৈঠায় এগিয়ে চলে পানসি, কোশা আর ছিপ নৌকা। আর গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী এ নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা উপভোগ করেন নদী তীরে দাঁড়িয়ে থাকা হাজার হাজার দর্শক। করতালি দিয়ে প্রতিযোগিদের উৎসাহ প্রদান করেন তারা।

নৌকা বাইচ দেখতে আসা এক দর্শনার্থী জহুরুল ইসলাম বলেন, এ আয়োজন আমাদের খুবই আনন্দ দিয়েছে। নৌকা বাইচ আমাদের গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী খেলা। এটি বাঁচিয়ে রাখতে প্রতিবছর আমাদেরকে এ আয়োজন করা উচিত। 
আর নদীতে বিপুল দর্শকের সমাগমে নৌকা বাইচে অংশগ্রহণ করতে পেয়ে খুশি বাইচালরাও।
শের এ বাংলা নৌকার বাইচে অংশ নেয়া এক বাইচাল বলেন, আমরা আজকেও চ্যাম্পিয়ান হয়েছি। যেখানেই নৌকা বাইচ হয় সেখানে আমরা অংশগ্রহণ করি। 
গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যকে টিকিয়ে রাখাতে প্রতি বছর এ প্রতিযোগিতা আয়োজনের দাবি দর্শনার্থীদের। আয়োজনের প্রতিশ্রুতি দিলেন আটঘরিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান তানভীর ইসলাম। তিনি বলেন, সারাদিন যে নৌকা বাইচ হলো তা মানুষ আনন্দের সঙ্গে উপভোগ করেছে। আমি যতদিন আছি ততদিন চেষ্টা করব প্রতিবছর এটা অব্যহত রাখার।  

বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার 

এই বিভাগের আরও খবর