শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২০ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৯ এপ্রিল, ২০২১ ২৩:৫১

খালেদা জিয়ার শঙ্কামুক্ত হতে লাগবে আরও দু-এক দিন

নিজস্ব প্রতিবেদক

খালেদা জিয়ার শঙ্কামুক্ত হতে লাগবে আরও দু-এক দিন

করোনায় আক্রান্ত হওয়ার একাদশ দিনে গতকাল বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা ছিল স্থিতিশীল। তবে রবিবার মধ্যরাতে প্রচন্ড জ্বর এসেছিল। গতকাল দিনভর কোনো জ্বর ছিল না। চিকিৎসকরা বলছেন, আরও দু-এক দিন না গেলে পুরোপুরি শঙ্কামুক্ত বলা যাবে না। শুধু জ্বর ছাড়া অন্য কোনো উপসর্গ নেই। বিএনপিপ্রধানকে সার্বক্ষণিক পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। গতকাল সন্ধ্যায় বেগম খালেদা জিয়ার চিকিৎসায় গঠিত মেডিকেল বোর্ডের সদস্য, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন বাংলাদেশ প্রতিদিনকে এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, ‘রবিবার রাতে জ্বর থাকলেও গতকাল সারা দিন কোনো জ্বর ছিল না। আমরা ম্যাডামকে সার্বক্ষণিক পর্যবেক্ষণে রাখছি।’ এর আগে রবিবার রাত সাড়ে ১১টা পর্যন্ত গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের বাসভবন ফিরোজায় খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা পর্যবেক্ষণ করতে যান মেডিকেল বোর্ডের সদস্যরা। বোর্ডের প্রধান অধ্যাপক ডা. এফ এম সিদ্দিকীর নেতৃত্বে ঢাকার কয়েকজন সদস্য ছাড়াও লন্ডন-আমেরিকার কয়েকজন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক এ বোর্ডে রয়েছেন। সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীর চিকিৎসার সমন্বয় করছেন বেগম জিয়ার পুত্রবধূ ডা. জোবায়দা রহমান। অধ্যাপক ডা. এফ এম সিদ্দিকী সাংবাদিকদের বলেন, ‘এখন বেগম জিয়া করোনার বিপজ্জনক সময় পার করছেন। তার পরও তাঁর যে শরীরের অবস্থা তা মোটামুটি ভালো। বেগম জিয়া মানসিকভাবে খুবই শক্ত আছেন এবং তাঁর শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে।’ তিনি বলেন, ‘গত তিন দিন থেকে বেগম জিয়ার গায়ে সামান্য জ্বর ওঠানামা করছিল। আগামী ৪৮ ঘণ্টা এ অবস্থা বিরাজ করলে বলতে পারব আমরা একটা নিরাপদ জোনে চলে আসছি। আমরা তাঁর শ্বাস-প্রশ্বাস ব্যায়ামের পরামর্শ দিয়েছি। তাঁর ব্লাড সুগারসহ অন্য যেসব প্যারামিটার রয়েছে সেগুলো ঠিক আছে। তাঁর কাশি নেই, গলাব্যথা নেই। তাঁর সবকিছু এখন পর্যন্ত স্থিতিশীল আছে।’ ৭৫ বছর বয়সী সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া গুলশানে নিজের ভাড়া বাসা ফিরোজায় থেকে ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসা নিচ্ছেন। তাঁর সঙ্গে বাইরের যোগাযোগ সীমিত।

এই বিভাগের আরও খবর