৭ ডিসেম্বর, ২০২২ ২২:৪৩

দুর্নীতি নির্মূল করে জাতিকে এগিয়ে যেতে হবে : ‌স্পিকার

নিজস্ব প্রতিবেদক

দুর্নীতি নির্মূল করে জাতিকে এগিয়ে যেতে হবে : ‌স্পিকার

জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, ‘বাংলাদেশের তরুণ-তরুণীরা সমগ্র বিশ্বে মেধার স্বাক্ষর রেখে চলেছে। বিশ্বব্যাপী অসংখ্য সফলতা বাংলাদেশের তরুণ-তরুণীদের। দুর্নীতি যেন এসকল সফলতাকে নষ্ট করে দিতে না পারে এজন্য নবীন-প্রবীণের সমন্বয়ে দুর্নীতি নির্মূল করে দেশ ও জাতিকে এগিয়ে যেতে হবে।’

বুধবার ইউএনডিপি বাংলাদেশ ও বাংলাদেশ ডিবেট ফেডারেশনের আয়োজিত ‘ইয়ুথ এগেইন্সট করাপশন’ শীর্ষক কর্মশালার সমাপনী সেশনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হয়ে তি‌নি এসব কথা বলেন। প‌রে তি‌নি ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে তরুণ সমাজ’ শীর্ষক বিতর্ক প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন।

রাজধানীর জাতীয় মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর মিলনায়তনে আ‌য়ো‌জিত এ অনুষ্ঠা‌নের প্ল্যানা‌রি সেশ‌নে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রা‌খেন ফখরুল ইমাম এমপি, কাজী নাবিল আহমেদ এমপি, পীর ফজলুর রহমান এমপি ও শামীম হায়দার পাটোয়ারী এমপি। সমাপনী সেশনে বক্তব্য রা‌খেন ইউএনডিপি বাংলাদেশের উপ-আবাসিক প্রতিনিধি ভ্যান নিউয়েন ও দুর্নীতি দমন কমিশন বাংলাদেশের কমিশনার মো. মোজাম্মেল হক খান। বাংলাদেশ ডিবেট ফেডারেশনের সভাপতি আব্দুল্লাহ মোহাম্মদ শুকরানা অনুষ্ঠানে সূচনা বক্তব্য রাখেন।

এসময় ড. শিরীন শার‌মিন চৌধুরী আ‌রও ব‌লেন, পরিবার ও স্কুল থেকেই দুর্নীতির বিরুদ্ধে শিক্ষাগ্রহণ জরুরি। মূল্যবোধকে জাগ্রত করে দুর্নীতির বিরুদ্ধে শৈশব থেকেই লড়াই করতে হবে। বিজয়ের মাসে তরুণদের দুর্নীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার করার জন্য ইউএনডিপির এ উদ্যোগ যুগোপযোগী। 

স্পিকার বলেন, ২০০৯ থেকে ২০২২ পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা বজায় রাখার পাশাপাশি দুর্নীতি রোধে সরকার নিরলসভাবে কাজ করছে। ২০২১ সালে বাংলাদেশ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করেছে। বাংলাদেশ আজ বিশ্বের কাছে উন্নয়নের রোল মডেল। স্বল্পোন্নত দেশ থেকে বাংলাদেশ আজ উন্নয়নশীল দেশের কাতারে। নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মাণের কারণে দক্ষিণাঞ্চলের অর্থনৈতিক উন্নয়নের পাশাপাশি সারাদেশে এর সুফল প্রভাব পড়েবে। তথ্য-প্রযুক্তির অবাধ প্রবাহের মাধ্যমে সকলে আজ সারা বিশ্বের সাথে যুক্ত। 

এসময় উন্নত বাংলাদেশ নির্মাণে দুর্নীতি রোধে তরুণদের পাশাপাশি সকল শ্রেণি-পেশার মানুষকে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান তিনি। ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, আমাদের সমাজ ও জীবনে দুর্নীতির বিরূপ প্রভাব রয়েছে। সামাজিক বৈষম্য দুর্নীতির কারণে বৃদ্ধি পায়। দুর্নীতি অর্থনৈতিক অগ্রগতিকে বাধাগ্রস্ত করে। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের মূল শর্ত সকল প্রকার দুর্নীতি সমাজ থেকে নির্মূল করা।

বিডি-প্রতিদিন/শফিক

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর