শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:১০

মৌলভীবাজার হয়ে ভারত

জ্বালানি তেলবাহী ১০টি লরি গেল ত্রিপুরায়

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

জ্বালানি তেলবাহী ১০টি লরি গেল ত্রিপুরায়

মৌলভীবাজার প্রতিনিধিমৌলভীবাজারের চাতলাপুর স্থলবন্দর হয়ে ভারতের জ্বালানি তেলবাহী ১০টি লরির প্রথম চালান গত রাতে ত্রিপুরায় পৌঁছেছে। গতকাল বিকাল ৫টার দিকে তামাবিল থেকে আগত লরিগুলো চাতলাপুর স্থলবন্দরের আনুষ্ঠানিকতা শেষে রাতে কৈলাসপুরে মনু চেকপোস্ট দিয়ে ভারতীয় সীমানায় প্রবেশ করে। প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে ভারতীয় পাহাড়ি পথে পেট্রল ও ডিজেল পরিবহনে সমস্যা হওয়ায় বাংলাদেশকে ট্রানজিটস্থল হিসেবে ব্যবহার করে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এ রুট দিয়ে ভারতীয় কর্তৃপক্ষ আসাম ও ত্রিপুরায় জ্বালানি তেল সরবরাহ করবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে। বাংলাদেশ অংশে যাতায়াত ও অবস্থানকালে ভারতীয় জ্বালানি তেলের ট্যাংকারের নিরাপত্তা প্রদানে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও পুলিশ বিভাগ থেকে চাতলাপুর চেকপোস্টসহ বিভিন্ন থানাকে নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে।

জানা যায়, ভারতের মেঘালয় ও দক্ষিণ আসাম হয়ে জাতীয় মহাসড়কের অবস্থা খুবই খারাপ। সাম্প্রতিক ভারী বর্ষণ ও ভূমিধসের কারণে আসাম থেকে ত্রিপুরাগামী সড়কপথ ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় যোগাযোগব্যবস্থা ব্যাহত হচ্ছে। ফলে ত্রিপুরায় জ্বালানি তেলের সংকট দেখা দেয়। জ্বালানির এ সংকট উত্তরণে বাংলাদেশের সড়কপথ ব্যবহার করে ভারতের ত্রিপুরায় তেল সরবরাহে সম্প্রতি ঢাকায় দুই দেশের সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এ চুক্তি অনুযায়ী গতকাল রাতে প্রথম তেলবাহী ১০টি লরি ত্রিপুরায় গেছে। সড়ক ও জনপথ অধিদফতর মৌলভীবাজারের নির্বাহী প্রকৌশলী উত্পল সামন্ত জানান, ভারী ভারতীয় যানবাহন চলাচল করছে না। ফলে সড়কের তেমন কোনো ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা নেই। তিনি আরও জানান, প্রতি কিলোমিটারে প্রতি টনে ভারতীয়রা শুল্ক প্রদান করবেন ১ টাকা ২ পয়সা হারে।


আপনার মন্তব্য