শুক্রবার, ১৩ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ টা

দেশ মাতিয়ে মালদ্বীপে বসুন্ধরা

ক্রীড়া প্রতিবেদক

দেশ মাতিয়ে মালদ্বীপে বসুন্ধরা

অবশেষে বিদেশে খেলার অপেক্ষার অবসান ঘটতে যাচ্ছে বসুন্ধরা কিংসের। ফুটবলে দেশ মাতিয়ে চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা মালদ্বীপে গেছে। আজ বিকালেই দল মালেতে পৌঁছে যাবে। ১৮ আগস্ট তাদের মিশন শুরু হবে। দেশসেরার পর লক্ষ্য এবার এশিয়া জয়। তবে তার আগে মালদ্বীপে ‘ডি’ গ্রুপে চ্যাম্পিয়ন হয়ে পরবর্তী রাউন্ডে উঠতে হবে। তা পারবে কি বসুন্ধরা কিংস?

বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন হিসেবে মোহামেডান, আবাহনী, মুক্তিযোদ্ধা, শেখ জামাল ও শেখ রাসেল এএফসি কাপে খেলেছে। তবে বসুন্ধরা প্রথমবার খেললেও ক্রীড়াপ্রেমীদের প্রত্যাশাটা বেশি। কেননা ফুটবলের দুর্দিনে ক্লাবটি ঘরোয়া আসরে নজর কাড়া পারফরম্যান্স প্রদর্শন করছে। তা ছাড়া এএফসি কাপে মাঠে নামবে পুরোপুরি চাপমুক্ত হয়ে। মালদ্বীপে উড়ার আগে পেশাদার লিগে কিংস শিরোপা নিশ্চিত করেছে।

‘ডি’ গ্রুপে বসুন্ধরার প্রতিপক্ষ মালদ্বীপের ম্যাজিয়া, ভারতের মোহনবাগান ও প্লে অফ ম্যাচে বিজয়ী দল। ভারতের কোনো ক্লাবের বিপক্ষে কিংস কখনো খেলেনি। কিন্তু মালদ্বীপের বিপক্ষে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। গত বছর বাতিল হওয়া এএফসি কাপের প্রথম ম্যাচেই টিসি স্পোর্টসকে ৫-১ গোলে বিধ্বস্ত করেছিল কিংস। যে ম্যাচে মেসির সতীর্থ বার্কোস ৪ গোলসহ হ্যাটট্রিক করেন। ২০১৯ সালে নীলফামারীতে প্রীতিম্যাচে রেডিয়েন্টকে ৫-১ গোলে হারায় কিংস।

মে মাসে খেলা হলে দুর্বল মোহনবাগানকে পাওয়া যেত। এখন পূর্ণ শক্তিশালী দল নিয়ে মাঠে নামবে তারা। গেল ইউরো কাপে ফিনল্যান্ডের হয়ে খেলা জনি কাওকো মোহনবাগানে খেলবেন। আছেন অস্ট্রেলিয়ার ডেভিড উইনিয়ামস, ফ্রান্সের হুগো বুমাস ও ফিজির জাতীয় দলের রয় কৃষ্ণা।

ইউরোকাপের জনি মোহনবাগানে নামবে। তাতে কি? কিংসে আছেন রবসন, রবিনহো, রাউল বেসেরা, জনাথন ফার্ন্দাডেজ ও খালিদ শাফিরা। এরা সেরাটা দিতে পারলে কিংসের দেখা মিলবে কিং রূপেই। ক্লাব সভাপতি ইমরুল হাসান বলেন, ‘বসুন্ধরা বলেই দেশবাসীর প্রত্যাশাটা বেশি। আমরা সেরাটা দিয়েই দেশকে জয় এনে দিতে চাই। লিগ শিরোপা নিশ্চিত হওয়ায় চাপমুক্ত খেলব। মোহনবাগানকে প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বীই ভাবছি। টার্গেট গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন। বিদেশের মাটিতে অভিষেকটা স্মরণীয় করে রাখতে চাই।’ কোচ অস্কার ব্রুজোন বলেন, ‘আমাদের প্রস্তুতি ভালো। লড়াইয়ে জন্য কিংস প্রস্তুত।’ অধিনায়ক তপু বর্মণের মতে, ‘গ্রুপে সবাই শক্তিশালী। আগাম কিছু বলা সম্ভব নয়।’ রবসন বলেন, ‘আমরা আত্মবিশ্বাসী। টিম স্পিরিট ধরে রাখতে হবে।’

 

বসুন্ধরা কিংস এএফসির কাপে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করছে। অথচ বাফুফে ঘটিয়েছে অবাক কা । গতকাল দেশ ছাড়ার আগে আরামবাগের বিপক্ষে লিগের ম্যাচ খেলেছে। যদিও তারকারা মাঠে কেউ ছিলেন না। দ্বিতীয় সারির দল নিয়েও বিপলুর গোলে জয় পেয়েছে। কিন্তু বাফুফে এমন অমানবিক আচরণ করল কেন? এর পেছনে কি কোনো রহস্য কাজ করছে।

সর্বশেষ খবর