শিরোনাম
মঙ্গলবার, ১০ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ টা

সেই চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে এবার স্বাস্থ্যকর্মীর মামলা

পটুয়াখালী প্রতিনিধি

বাউফল উপজেলায় টিকাদান কেন্দ্রে স্বাস্থ্যকর্মীকে মারধর ও সালিশ বৈঠকে কিশোরীকে বিয়ে করা সেই ইউপি চেয়ারম্যান শাহিন হাওলাদারের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। গতকাল স্বাস্থ্যসহকারী আল আমিন সিকদার বাদী হয়ে বাউফল থানায় মামলাটি করেন।

মামলাসূত্রে জানা যায়, শনিবার কনকদিয়া ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে করোনা টিকার কার্যক্রম চলার সময় শাহিন হাওলাদার এসে স্বাস্থ্যসহকারী আল আমিন সিকদারকে তার নির্দেশ অনুযায়ী টিকা কার্যক্রম পরিচালনা করতে বলেন। এতে রাজি না হওয়ায় তিনি আল আমিনকে কিল-ঘুষি ও লাথি মারেন। একপর্যায়ে ওই স্বাস্থ্যকর্মী অচেতন হয়ে মেঝেতে পড়ে যান। এর প্রতিবাদ করলে তিনি সহকারী স্বাস্থ্য পরিদর্শক তাছলিমা নাজনিনকেও গালাগাল করেন। এ ঘটনায় রবিবার তারা বাউফল স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তাকে বিষয়টি লিখিতভাবে জানান।

বাউফল থানার ওসি আল মামুন বলেন, মামলা দায়ের হয়েছে। এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অভিযুক্ত চেয়ারম্যান শাহিন হাওলাদার বলেন, ‘নিজেদের দোষ ঢাকতে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করেছে। যারা আইডি কার্ড নিয়ে আসবেন তারা টিকা পাবেন। অথচ এখানে স্বাস্থ্যকর্মীরা নিজেদের আত্মীয়স্বজনকে টিকা দিচ্ছেন। ফলে বিশৃঙ্খলা দেখা দিলে আমি প্রতিবাদ করেছি। কাউকে মারধর কিংবা গালাগালির অভিযোগ সত্য নয়।’

সর্বশেষ খবর