২০ জুন, ২০২৪ ১৭:৪৯

বেড়েছে সবজির দাম, দিশেহারা নিম্নআয়ের মানুষ

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

বেড়েছে সবজির দাম, দিশেহারা নিম্নআয়ের মানুষ

ঝিনাইদহে সব ধরনের সবজির দাম বেড়েছে। ঈদের পরদিন থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত এ দাম অব্যাহত রয়েছে। প্রতিটি সবজির দাম ২০ থেকে ৩০ টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে।

খুচরা ব্যবসায়ীদের অভিযোগ, বাজারে সরবরাহ কম থাকায় সব ধরনের সবজির দাম হঠাৎ করে বেড়ে গেছে। কাঁচা মরিচের দাম ঝিনাইদহের প্রত্যেকটি সবজি বাজারে বিক্রি হচ্ছে ২৫০ থেকে ২৮০ টাকা কেজি। ঈদ হওয়ায় কৃষকরা তাদের ক্ষেত থেকে সবজি ঠিকমতো তুলছে না। সাধারণ মানুষ সবজির ও কাঁচা মরিচের দাম বেড়ে যাওয়ায় স্থানীয় প্রশাসনকে দায়ী করছেন। ঠিকমতো বাজারে মনিটরিং থাকলে ব্যবসায়ীরা অধিকহারে মুনাফা অর্জন করতে পারতো না।

ঝিনাইদহের বাজারগুলো ঘুরে দেখা গেছে, বেগুন বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৮০ টাকা, কচুর কেজি ১০০ টাকা, টমেটোর কেজি ১৩০ টাকা, পটলের কেজি ৫০ টাকা, ফুলকপির কেজি ৫০ টাকা, মিষ্টি কুমড়ার জালি ৫০ টাকা, মিষ্টি কুমড়ার কেজি ৪০ টাকা, চাল কুমড়ার জালি ৩০ টাকা, ক্ষীরা ৭০ টাকা কেজি, বাঁধাকপির কেজি ৪০ টাকা। এ ছাড়া কাঁচা কলার হালি ৪০ টাকা, ঝিঙে ৪০ টাকা, পেঁপে ৪০ টাকা, গাজরের কেজি ১৬০ টাকা। কিছু কিছু সবজি ২০ থেকে ৩০ টাকা কেজিতে বেড়েছে। এতে নিম্নআয়ের মানুষ দিশেহারা হয়ে পড়েছে।

ঝিনাইদহ ওয়াপদা বাজারের খুচরা সবজি ব্যবসায়ী সিরাজুল ইসলাম, মোকাদ্দেস হোসেন ও লিটন হোসেন জানান, দীর্ঘদিন ধরে বৃষ্টি না হওয়ায় গাছের ফুল ও ফল শুকিয়ে যাচ্ছে এবং সেগুলো বড় হতে পাড়ছে না। কৃষকরা সেচ দিয়ে সবজি উৎপাদন বৃদ্ধি করতে পাড়ছে না। সেই সাথে উৎপাদন খরচও বেড়ে গেছে।

তারা বলেন, ঈদের কারণে মরিচ ও কিছুু সবজির দাম বেড়ে গেছে। আমরা মনে করছি এমন দাম থাকবে না। আস্তে আস্তে এটা কমে আসবে।

এ বিষয়ে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রাজিয়া আক্তার চৌধুরী বলেন, আমরা জানতে পেরেছি সবজির দাম কিছুটা বৃদ্ধি পেয়েছে। ঈদের কারণে অনেকেই ছুটিতে আছে। তারা ফিরে আসলে বাজার মনিটরিং করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বিডি প্রতিদিন/এমআই

সর্বশেষ খবর