শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ২২ এপ্রিল, ২০১৯ ২৩:১২

রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীসহ বিশ্বনেতাদের নিন্দা

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীসহ বিশ্বনেতাদের নিন্দা

শ্রীলঙ্কায় সন্ত্রাসী হামলায় হতাহতের ঘটনায় বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রীসহ বিশ্ব নেতারা গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। একই সঙ্গে শোক প্রকাশ করেছে দেশের সর্বস্তরের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার সংগঠন। এ সন্ত্রাসী হামলায় আওয়ামী লীগ নেতা শেখ ফজলুল করিম সেলিম এমপির নাতি ও এফবিসিসিআইর সিনিয়র সহ-সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিমের ভাগ্নে শিশু জায়ান চৌধুরীও নিহত হয়েছে।

এ ঘটনায় শোক প্রকাশ করে তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোয় ইস্টার সানডে পালনকালে একাধিক বিস্ফোরণে বহু হতাহতের ঘটনায় তীব্র নিন্দা এবং গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। রাষ্ট্রপতি গতকাল শোকবার্তায় নিহতদের আত্মার শান্তি এবং আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করেন। তিনি শ্রীলঙ্কার সরকার ও জনগণের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শ্রীলঙ্কায় তিনটি চার্চ ও তিনটি হোটেলে ধারাবাহিক বোমা হামলায় বহু লোকের মৃত্যু ও আহত হওয়ার ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন। শোকবার্তায় প্রধানমন্ত্রী বোমা হামলায় বিপুল হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক ও সমবেদনা প্রকাশ করেন। প্রধানমন্ত্রী তিন দিনের সরকারি সফরে বর্তমানে ব্রুনাই দারুসসালামে রয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী নিহতদের আত্মার শান্তি এবং আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করেন। শেখ হাসিনা শ্রীলঙ্কার সরকার ও জনগণের প্রতি সমবেদনা জানান। শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা বলেছেন, বিস্ফোরণ ও নিহতের ঘটনায় তিনি শোকাহত। আর দেশটির প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমা সিংহে টুইটারে লিখেছেন, আমাদের জনগণের ওপর কাপুরুষোচিত এ হামলার তীব্র নিন্দা জানাই।

ওই হামলার ঘটনার নিন্দা জানিয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেছেন, আমাদের অঞ্চলে এ ধরনের বর্বতার কোনো স্থান নেই। শ্রীলঙ্কানদের প্রতি সংহতি জানিয়ে যে কোনো প্রয়োজনে তাদের পাশে থাকার প্রতিশ্রুতিও দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। নিন্দা জানিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প টুইটার বার্তায় বলেছেন, গির্জা ও হোটেলে ভয়াবহ বিস্ফোরণে বহু নিহত এবং আহত হওয়ার ঘটনা একটি সন্ত্রাসী হামলা। যুক্তরাষ্ট্র নিহতদের প্রতি শোক প্রকাশ করছে। একই সঙ্গে শ্রীলঙ্কার কোনো সহায়তায় আমরা প্রস্তুত রয়েছি। হামলার ব্যাপারে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে। তিনি টুইটে বলেছেন, বিশেষ দিনে গির্জা এবং হোটেলে ভয়াবহ এ হামলা উদ্বেগজনক। এ ঘটনায় যারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন, তাদের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি। একই সঙ্গে তিনি এমন ঘটনা মোকাবিলায় সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান। ভয়াবহ সিরিজ বোমা হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন। শ্রীলঙ্কায় পাঠানো টেলিগ্রামে বলেছেন, এসব আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে আমাদের অংশীদার শ্রীলঙ্কার পাশে আছে মস্কো। অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন বিবৃতিতে বলেছেন, শ্রীলঙ্কানদের পাশে আছে অস্ট্রেলিয়া। তাদের প্রয়োজনে সক্ষমতা অনুযায়ী আমরা সহায়তা করে যাব। এ জন্য আমরা প্রস্তুত। কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো টুইটারে বলেছেন, শ্রীলঙ্কা থেকে ভয়ঙ্কর রকমের খবর এসেছে। দেশটির গির্জা এবং হোটেলে এ ধরনের সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছে কানাডা। এ ঘটনায় নিহতদের প্রতি শোক এবং তাদের পরিবার ও আহতদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন তিনি। নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্ন বলেছেন, গত ১৫ মার্চ নিউজিল্যান্ডে হামলার পর বিশ্ব সম্প্রদায়ের ঐক্য বেড়েছে। কিন্তু শ্রীলঙ্কায় গির্জায় মানুষের ওপর হামলা খুবই দুঃখজনক। এসব মোকাবিলায় আমাদের এক হয়ে কাজ করতে হবে। নেদারল্যান্ডসের প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুট বলেছেন, বিশেষ দিনে শ্রীলঙ্কার গির্জা ও হোটেলে ভয়াবহ রক্তাক্ত হামলার খবর পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় নিহতদের প্রতি শোক এবং তাদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেব এরদোগান টুইটারে বলেছেন, বিশেষ দিনে গির্জায় ভয়াবহ এ সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি আমি। এ হামলা আমাদের সবার মানবিকতাকে আহত করেছে। তুরস্কের পক্ষ থেকে আমি নিহতদের প্রতি শোক এবং তাদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করছি। একই সঙ্গে আমরা আশা করছি আহতরা খুব দ্রুত সেরে উঠবেন। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বর্বরোচিত ওই হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, শ্রীলঙ্কার এ দুঃসময়ে পাকিস্তান তাদের পাশে রয়েছে। এদিকে শ্রীলঙ্কায় সন্ত্রাসী হামলায় হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক প্রকাশ করেছে ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের শীর্ষ সংগঠন বাংলাদেশ শিল্প ও বণিক সমিতি ফেডারেশন এফবিসিসিআই। এ সন্ত্রাসী হামলায় এফবিসিসিআইর সিনিয়র সহ-সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিমের ভাগ্নে এবং আওয়ামী লীগ নেতা শেখ ফজলুল করিম সেলিম এমপির নাতি জায়ান চৌধুরী ইন্তেকাল করেছে।

গতকাল এফবিসিসিআইর সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ শোক প্রকাশ করেন সংগঠনটির সভাপতি শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন ও সহ-সভাপতি মুনতাকিম আশরাফসহ পরিচালকরা। তারা জায়ান চৌধুরীসহ নিহতদের আত্মার শান্তি কামনা এবং আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করেছেন। এফবিসিসিআই শ্রীলঙ্কায় এ মর্মান্তিক সন্ত্রাসী হামলায় নিহতদের আত্মার শান্তি কামনা করেছেন। পাশাপাশি নিহতদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছে এফবিসিসিআই। ওই সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন জামায়াতে ইসলামীর আমির মকবুল আহমাদ, বাংলাদেশ জমিয়াতুল উলামার চেয়ারম্যান, ঐতিহাসিক শোলাকিয়ার গ্রান্ড ইমাম আল্লামা ফরিদ উদ্দীন মাসউদ, ইউনাইটেড মুসলিম উম্মাহ ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের চেয়ারম্যান এম এ আউয়াল, ইসলামি ঐক্যজোটের মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহ প্রমুখ। এ ছাড়া নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে সোমবার মধ্যরাত থেকে প্যারিসের আইফেল টাওয়ারের লাইট বন্ধ করে অন্ধকারাচ্ছন্ন করে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম সিএনএন। ওই হামলার ঘটনায় শোক প্রকাশ করেছেন বিশ্বের বিভিন্ন দেশের রাজনীতিবিদ, খেলোয়াড়, অভিনেতা-অভিনেত্রীসহ দায়িত্বশীলরা। তারা সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন।


আপনার মন্তব্য