৬ জানুয়ারি, ২০২৩ ১০:৫৮

যে কারণে তেহরানে ফরাসি গবেষণা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিল ইরান

অনলাইন ডেস্ক

যে কারণে তেহরানে ফরাসি গবেষণা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিল ইরান

সংগৃহীত ছবি

ফ্রান্সের একটি ম্যাগাজিন ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় কর্তৃপক্ষের অবমাননা করায় তেহরান-ভিত্তিক একটি ফরাসি গবেষণা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিল ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

তেহরানে ফরাসি দূতাবাসের তত্ত্বাবধানে ইরানি ঐতিহ্য নিয়ে গবেষণা করতে এর আগে ‘দি ইনিস্টিটিউট ফ্রান্সোইস দি রিচেরচে’ নামক ওই প্রতিষ্ঠানটি চালানোর অনুমতি দিয়েছিল তেহরান।

ফ্রান্সের শারলি এবদো পত্রিকা গত বুধবার একটি বিশেষ সংখ্যা প্রকাশ করে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ীর একাধিক অবমাননাকর কার্টুন প্রকাশ করে। গতমাসে পত্রিকাটি এক ঘোষণায় বিশ্বের সকল কার্টুনিস্টের কাছ থেকে ইরানের সর্বোচ্চ নেতার ব্যাঙ্গাত্মক কার্টুন আহ্বান করেছিল। ওই প্রতিযোগিতায় সংগৃহীত কার্টুনগুলো থেকে বাছাই করা কিছু কার্টুন বুধবার প্রকাশ করে বিতর্কিত ফরাসি পত্রিকাটি।

কঠোরতম ভাষায় ফরাসি পত্রিকার এ অবমাননাকর পদক্ষেপের নিন্দা জানিয়ে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, কুখ্যাত পত্রিকাটি স্বীকৃত আন্তর্জাতিক রীতিনীতি লঙ্ঘন করার পাশাপাশি ইরানি জনগণের অনুভূতি ও জাতীয় মূল্যবোধে আঘাত হেনেছে। তেহরানে ফরাসি প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ করে দেওয়ার মাধ্যমে এই অবমাননার বিরুদ্ধে ‘প্রথম পদক্ষেপ’  নেওয়া হলো বলে বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়। 

এর আগে বুধবার তেহরানে নিযুক্ত ফরাসি রাষ্ট্রদূত নিকোলাস রোচেকে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করে শার্লি এবদো পত্রিকার অবমাননাকর আচরণের তীব্র প্রতিবাদ জানানো হয়। সূত্র: প্রেসটিভি

বিডি প্রতিদিন/কালাম

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর