Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৪ মে, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৩ মে, ২০১৯ ২৩:০১

ভাইয়ের ঘনিষ্ঠ বন্ধু যখন ঘাতক!

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম

ভাইয়ের ঘনিষ্ঠ বন্ধু যখন ঘাতক!

একসময়ের ঘনিষ্ঠ বন্ধু শাহ আলম ও রুবেল। পরে তাদের সম্পর্কে ধরে ফাটল। মধুর সেই সম্পর্ক পরিণত হয় ‘সাপে-নেউলে’। এরপর থেকে এলাকায় আধিপত্য ও মাদক ব্যবসা নিয়ে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ঘটত তাদের অনুসারীদের মধ্যে। সেই বিরোধের জের ধরে শনিবার রাতে ফ্লিমি স্টাইলে অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে রুবেলকে মারতে আসেন শাহ আলম। কিন্তু তাকে না পেয়ে গুলি করে হত্যা করে বোন বুবলি আকতারকে। বাকলিয়া থানার ওসি নেজাম উদ্দিন বলেন, ‘শাহ আলমের বিরুদ্ধে মাত্র একটি মামলা থাকলেও বন্দুকযুদ্ধে মারা যাওয়ার পর অসংখ্য অভিযোগ পাচ্ছি। এতদিন তার ভয়ে কেউ মুখ খোলেনি। নিহত শাহ আলম নীরব চাঁদাবাজির মাধ্যমে রামের রাজত্ব কায়েম করেছেন।’ জানা যায়, বাকলিয়ার বলিহাট এলাকার রুবেল ও নিহত শাহ আলমের মধ্যে ছিল ঘনিষ্ঠ বন্ধুত্ব। একসময়ের রাজমিস্ত্রী শাহ আলম ও রুবেল স্থানীয় এক ওয়ার্ডে কাউন্সিলরের সান্নিধ্যে এসে হয়ে উঠেন এলাকার আতঙ্ক। মাদক ব্যবসা, চাঁদাবাজিসহ নানা অপরাধ কর্মকান্ডে একই সঙ্গে সঙ্গী হন একে অপরের। গত বছর রমজান মাসে ভাগভাটোয়ারা নিয়ে শাহ আলম বন্ধু রুবেলের খালাতো ভাই হাসানকে ছুরিকাঘাত                করেন। এরপর থেকে দূরত্ব বাড়তে থাকে দুজনের। এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় কিছুদিন জেলও খাটেন শাহ আলম।

তিন আসামি রিমান্ডে : বুবলি আকতার খুনের ঘটনায় গ্রেফতার হওয়া তিন আসামির তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। তারা হলেন- নবী হোসেন, মোহাম্মদ মুছা এবং আহম্মদ কবির। গতকাল মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. আল ইমরানের আদালত তাদের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।


আপনার মন্তব্য