শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ২৩:৪০

তারা বুঝতে পারেন না এতে সারা দেশের ইজ্জত যায় : মান্না

নিজস্ব প্রতিবেদক

মধ্যপ্রাচ্যে নারী নির্যাতনের কথা তুলে ধরে নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, এটা বিজয়ের মাস আর ক্ষমতাসীনরা এটা বলে সারা দেশেই উৎসব করে বেড়াচ্ছে। অন্যদিকে মধ্যপ্রাচ্যে আমাদের মা-বোনেরা কাঁদছেন। তারা নির্যাতিত, নিগৃহীতা ও ধর্ষিতা হচ্ছেন। নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে কেউ কেউ মৃত্যুকেও বেছে নিচ্ছেন। এরই মধ্যে ৫০ জনের মতো মৃত্যুর খবর পেয়েছি। আমাদের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন, হাজার  হাজার মানুষ কাজে যায়। এর মধ্যে ৫০ জনের মৃত্যু তেমন কিছু না। তার মানে আমাদের মন্ত্রীকে সাধারণ মানুষের মৃত্যু বিচলিত করে না। তারা কষ্ট পান না। তারা বুঝতে পারেন না, এতে সারা দেশের ইজ্জত যায়।

গতকাল সকালে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে নাগরিক নারী ঐক্যের উদ্যোগে  দেশে ও মধ্যপ্রাচ্যে নির্যাতনে নারীর মৃত্যু, দ্রব্যমূল্যের সীমাহীন বৃদ্ধি ও দুর্বিষহ জীবনের অবসানের দাবিতে এক মানববন্ধনে অংশ নিয়ে তিনি এ কথা বলেন। মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, মানববন্ধনে যারা দাঁড়িয়েছি কেউ বিএনপি করি না। এটা মনে করি না আওয়ামী লীগ ক্ষমতা থেকে  গেলে বিএনপি এলে সব সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। এটা বলি, দুই কোটি টাকার জন্য কারও জেল হতে পারে না। লাখ কোটি টাকা ব্যাংক থেকে পাচার হয়ে গেছে। কিন্তু আজকেও রিপোর্ট আলোর মুখ দেখেনি। যারা ব্যাংক, শেয়ার মার্কেট ধ্বংসের জন্য দায়ী ওখানে কোনো মামলা হয়নি। ওটাকে বলেন, শুদ্ধি অভিযান। ওই অভিযানও বন্ধ রয়েছে। তিনি বলেন, বেগম খালেদা জিয়ার জামিন পাওয়ার অধিকার আছে। আদালত বলল, মেডিকেল রিপোর্টের কথা। চিন্তা করতে পারেন, এতদিন সময় নেওয়ার পরও কোর্টকে তা দেওয়া হয়নি। আমাদের বলা হয়, আমরা আইন মানি না। আদালত মানি না। তাহলে বঙ্গবন্ধু হাসপাতালের মেডিকেল  বোর্ড কি আদালত মানে? বেগম জিয়ার জামিন শুনানি ১২ ডিসেম্বর কেন আবার দেওয়া হলো? কারণ ১৩ ডিসেম্বর থেকে আদালত দীর্ঘদিনের জন্য বন্ধ সেই জন্য তো! সব বগিজগি, দান্ধাবাজি। জনগণকে বিভ্রান্ত করার জন্য একটার পর একটা অপকৌশল।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর