শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ৩১ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ৩০ মে, ২০২১ ২৩:০৭

হাসপাতাল ভবন নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি

Google News

হবিগঞ্জ ১০০ শয্যা আধুনিক জেলা সদর হাসপাতালকে ২৫০ শয্যায় উন্নীত করতে সরকার ৪৫ কোটি টাকা ব্যয়ে ৮ তলা যে নতুন ভবন নির্মাণ করেছে সেটি ঝ্ুঁকিপূর্ণ। চালু হওয়ার আগেই নষ্ট হয়ে গেছে লিফট, ভেঙে পড়ছে দরজা-জানালা। ব্যাপক দুর্নীতি, অনিয়ম ও নিম্নমানের নির্মাণসামগ্রী ব্যবহারের কারণেই ভবনটি ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে। এ ছাড়া হবিগঞ্জে প্রতি শুক্র ও শনিবার ঢাকা থেকে যেসব ডাক্তার আসেন তাদের অধিকাংশই ভুয়া।

গতকাল জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় এসব তথ্য উঠে আসে। হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী এ ব্যাপারে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেন।

সভায় হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্যরা জানান, হবিগঞ্জের মানুষকে শতভাগ স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতের জন্য জেলা আধুনিক সদর হাসপাতালকে ১০০ শয্যা থেকে ২৫০ শয্যায় উন্নীত করা হয়েছে। এর জন্য ৪৫ কোটি টাকা ব্যয়ে ৮ তলা একটি ভবনও নির্মাণ করা হয়েছে। ২০১৭ সালের ২০ জুলাই ভবনটির উদ্বোধন করেন তৎকালীন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। উদ্বোধনের ৩ বছর পরও ভবনটিতে কার্যক্রম চালু হয়নি। যে কারণে নতুন ভবনের জন্য যেসব যন্ত্রাংশ কেনা হয়েছে সেগুলো নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। এ ছাড়া এই ভবনটি নির্মাণে ব্যাপক অনিয়ম ও দুর্নীতি হয়েছে। ভবনের লিফট নষ্ট হয়ে গেছে। দরজা জানালাও ভেঙে পড়ছে।

বেসামরিক বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী বলেন, হবিগঞ্জ জেলা আধুনিক সদর হাসপাতালের নতুন ভবন নির্মাণে অনিয়মসহ সব বিষয়ে কমিটি গঠন করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এতে যারাই জড়িত রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সভায় উপস্থিত ছিলেন- জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহান, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ডা. মুশফিক হোসেন চৌধুরী, সিভিল সার্জন ডা. মুস্তাফিজুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) তারেক মোহাম্মদ জাকারিয়া, হাসপাতালের তত্ত্ব¡াবধায়ক ডা. হেলাল উদ্দিন, হবিগঞ্জ প্রেস ক্লাব সভাপতি চৌধুরী মোহাম্মদ ফরিয়াদ।

এই বিভাগের আরও খবর