শিরোনাম
প্রকাশ : ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ১৮:০২

পেকুয়ায় নির্যাতনের ৫ দিন পর গৃহবধূর মৃত্যু

চকরিয়া (কক্সবাজার ) প্রতিনিধি

পেকুয়ায় নির্যাতনের ৫ দিন পর গৃহবধূর মৃত্যু
প্রতীকী ছবি

কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার বরবাকিয়া ইউনিয়নের পাহাড়িয়াখালী ছনখোলার জুম এলাকায় সালমা বেগম (১৭) নামের এক গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। 

বুধবার ভোর ৫টার দিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

এ সময় চট্টগ্রামের পাঁচলাইশ থানা পুলিশ ঘাতক স্বামী মো. আলমগীরকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে আটক করে। 

আলমগীর বারবাকিয়া ইউপির ছনখোলারজুম এলাকার জাফর আলমের ছেলে। 

জানা গেছে, গত শনিবার রাতে আলমগীর যৌতুকের টাকার জন্য লাঠি দিয়ে পিটিয়ে জখম করে তার স্ত্রী সালমা বেগমকে। ওইদিন রাতে তাকে পেকুয়া সরকারি হাসপাতালে ও পরে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পাঁচদিন পর চমেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় বুধবার ভোর ৫টার দিকে মারা যান সালমা। 

গত তিন মাস আগে টইটং ইউনিয়নের পন্ডিতপাড়ার বাদশাহর মেয়ে সালমা বেগমকে বিয়ে করেন আলমগীর। সালমা তার ২য় স্ত্রী। বিয়ের পর থেকে তাকে যৌতুকের টাকার জন্য একাধিকবার শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন চালায় স্বামী আলমগীর। তার বিরুদ্ধে পেকুয়া থানায় মারামারি, বন ও বিভিন্ন ঘটনায় ৭টি মামলা রয়েছে বলে জানা গেছে।

পেকুয়া থানার ওসি (তদন্ত) মাঈন উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বিডি প্রতিদিন/এমআই


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর