শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৯ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ এপ্রিল, ২০২০ ২৩:৪৭

করোনা যুদ্ধে দরকার সম্মিলিত প্রচেষ্টা

----- খালেকুজ্জামান

করোনা যুদ্ধে দরকার সম্মিলিত প্রচেষ্টা

বাসদের সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান বলেছেন, করোনাভাইরাস একটি জাতীয় দুর্যোগ। এ দুর্যোগ মোকাবিলায় সবার অংশগ্রহণ দরকার। একা সরকারের পক্ষে, কিংবা প্রশাসন বা একটা দলের পক্ষে এ সংকট মোকাবিলা করা সম্ভব নয়। এ জন্য সম্মিলিত প্রচেষ্টা দরকার। বর্তমান করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় আপনার ভাবনা কী- জানতে চাইলে তিনি এসব কথা বলেন। খালেকুজ্জামান বলেন, ‘আমরা দল ও জোটের পক্ষ থেকে সরকারের কাছে আহ্বান জানিয়েছিলাম এই সংকট সম্মিলিতভাবে মোকাবিলা করার জন্য। আমরা সরকারকে লিখিতভাবেও বলেছি। কিন্তু কোনো সাড়া পাইনি।’ এই বাসদ নেতা বলেন, ‘চীনে যখন প্রথম আক্রান্ত হলো, এরপর ইউরোপের দেশে দেশে ছড়িয়ে পড়ল, তারপর আমাদের দেশে একজন আক্রান্ত হলো। কিন্তু তখন থেকে প্রতিরোধের জন্য ততটা মনোযোগ দেওয়া হয়নি। মনোযোগ দিলে বর্তমান পরিস্থিতি হয়তো এতটা খারাপ হতো না।’ তিনি বলেন, ‘আমরা শুরুর দিকে মানুষকে হ্যান্ড স্যানিটাইজার, মাস্ক, সাবান দিয়েছি। তারপর ২০-৩০টি জেলায় ত্রাণও দিয়েছি। কিন্তু এসব দুর্যোগ এভাবে মোকাবিলা করলে হবে না। এর জন্য সরকার, প্রশাসন, সরকারি দল, বিরোধী দল, বেসরকারি বিভিন্ন সংস্থা সবাইকে একসঙ্গে করে সবার মতামতের ভিত্তিতে সমন্বিতভাবে উদ্যোগ নিতে হবে। সরাসরি সবাইকে নিয়ে বসতে না পারলে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সবার মতামত নেওয়া যেতে পারে। এর ভিত্তিতে নেওয়া যেতে পারে একটা সমন্বিত উদ্যোগ, যাতে আমরা এ দুর্যোগ মোকাবিলা করতে পারি।’খালেকুজ্জামান বলেন, এখন যে কাজ হচ্ছে তাতে সমন্বয়ের অভাব রয়েছে। স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিজেই জানেন না কীভাবে, কোথায়, কারা কাজ করছেন। একটা সম্মিলিত চেষ্টা থাকলে এসব সমন্বয়হীনতা কমে যাবে। কার্যকারিতা বাড়বে। অনিয়ম কমবে। কেউ কোথাও ত্রাণ লুট করতে পারবে না। চিকিৎসাটাও পাবে মানুষ।

লকডাউন প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, ‘ইউরোপ, আমেরিকার মতো আমাদের দেশে লকডাউন করলে হবে না। কারণ আমাদের ঢাকা শহরে ৪০ লাখ মানুষ থাকে বস্তিতে। একটা টিনশেডের ঘরে ১০-১২ জন করে থাকে। লকডাউন করলে তারা যাবে কোথায়। খাবার পাবে কীভাবে। হ্যাঁ, তবে এসব দরিদ্র মানুষের কাছে যদি খাবার পৌঁছে দেওয়া যায়, তাহলে হয়তো তাদের ঘরে আটকে রাখা যাবে। দিন আনে দিন খায় এমন মানুষের কাছে খাবার পৌঁছে দিতে হবে।’ বাসদ সাধারণ সম্পাদক বলেন, মানুষকে বাঁচাতে হবে, আবার রোগ থেকেও রক্ষা করতে হবে। তাই এটি কারও একার পক্ষে, অর্থাৎ সরকার, প্রশাসন, আমলা আর সরকারি দল মিলে করলে হবে না। এটি একটি যুদ্ধ। একাত্তরে যেমন মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিল, এখন করোনা যুদ্ধ। সবাইকে নিয়ে সম্মিলিতভাবে এই যুদ্ধ চালাতে হবে। না হলে মানুষ শুধু রোগে আক্রান্ত হয়েই নয়, না খেয়েও মরবে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর