শনিবার, ৩১ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ টা

রাজশাহীতে মাছ চাষে বিপ্লব

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী

রাজশাহীতে মাছ চাষে বিপ্লব

রাজশাহীতে গত কয়েক বছরে মাছ চাষে বিপ্লব ঘটেছে। আর দেশের বিভিন্ন প্রান্তে তাজা মাছ সরবরাহে প্রথম স্থানেও এখন রাজশাহী বিভাগ। প্রতিদিন রাজশাহী জেলা থেকে ১৪০-১৫০ ট্রাকযোগে প্রায় ২ কোটি টাকার তাজা মাছ রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যাচ্ছে। সে হিসাবে বছরে গড়ে প্রায় ৭৩০ কোটি টাকার তাজা মাছ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে নিয়ে বিক্রি হচ্ছে। রাজশাহী বিভাগীয় মৎস্য অফিস সূত্রে জানা যায়, তাজা মাছ বাইরে পাঠানোর উদ্যোগটি প্রথমে রাজশাহী জেলা থেকে শুরু হয়। জেলার পুঠিয়া, পবা, মোহনপুর, দুর্গাপুর, বাগমারা ও তানোর উপজেলা এবং নাটোর জেলার সিংড়া, গুরুদাসপুর ও বড়াইগ্রামের মাছ সবচেয়ে বেশি ঢাকায় যাচ্ছে। রাজশাহী জেলা থেকে প্রতিদিন অন্তত ১৫০ ট্রাক মাছ ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যাচ্ছে। একটি ট্রাকে মাছ থাকে ৭০০ থেকে ৯০০ কেজি। বর্তমানে জেলার ১২ শতাংশ মানুষের কর্মসংস্থান সৃষ্টি হয়েছে এ মাছ চাষে। সে হিসাবে প্রায় ২ লাখ ৮৮ হাজার মানুষের কর্মসংস্থান এখন মাছ চাষে। রাজশাহী বিভাগের বাইরে বছরে প্রায় ৭৩০ কোটি টাকার মাছের ব্যবসাসহ মাছ চাষে সব মিলিয়ে আয় হচ্ছে হাজার কোটি টাকা। মৎস্য অফিস সূত্র জানায়, জেলায় বর্তমানে ১৩ হাজার ৫০ হেক্টর জমির কয়েক হাজার পুকুরে প্রতি বছর ৮৪ হাজার মেট্রিক টন মাছ উৎপাদন হচ্ছে।

তবে গত ৫ বছরে জেলায় আরও নতুন করে কয়েক হাজার হেক্টর জমিতে পুকুর খনন করা হয়েছে। পবা উপজেলার মৎস্য ব্যবসায়ী সাদিকুল ইসলাম বলেন, ‘আমি ২০০৭ সালে সামান্য কয়েক কাঠা পুকুর দিয়ে মাছ চাষ শুরু করি। ১৩ বছরে এখন প্রায় ১৮০ বিঘার পুকুর হয়েছে আমার।’ তিনি বলেন, ‘মাছ চাষ লাভজনক ব্যবসা। তবে তাজা মাছ আরও বেশি লাভজনক। মরা মাছ যেখানে ১০০ টাকা কেজি, সেখানে তাজা মাছ ২০০ টাকা কেজিতে বিক্রি করা হয়।’ পুঠিয়া উপজেলার শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের মাছ চাষি এরশাদ আলী জানান, গত কয়েক বছর ধরে বাজার ভালো হওয়ায় বর্তমানে এ এলাকায় অনেকেই মাছ চাষে আগ্রহী হচ্ছেন। অনেক কৃষক তাদের নিচু জমিগুলোতে এখন পুকুর খনন করছেন।

রাজশাহী বিভাগীয় মৎস্য অধিদফতরের উপ-পরিচালক অলোক কুমার বলেন, ‘মাছ চাষের জন্য রাজশাহী আগে থেকেই উপযুক্ত জায়গা। তবে কয়েক বছরে রাজশাহীসহ পাশের জেলা নাটোরে এ মাছ চাষে বিপুল মানুষের কর্মসংস্থান সৃষ্টি হয়েছে। বর্ষায় ধান খেতে মাছ চাষ, খাঁচায় মাছ চাষ অনেক লাভজনক। এখন নদীর মধ্যেও পুকুর করে মাছ চাষ করা সম্ভব হচ্ছে। সব মিলিয়ে বাণিজ্যিকভাবে মাছ চাষে এখন স্বাবলম্বী রাজশাহী।’