শিরোনাম
প্রকাশ : ২০ মে, ২০১৯ ১২:৪৫

বাজারে আসছে মার্সেলের বাংলা ভয়েস কন্ট্রোল টিভি

অনলাইন ডেস্ক

বাজারে আসছে মার্সেলের বাংলা ভয়েস কন্ট্রোল টিভি

ইলেকট্রনিক্স ব্র্যান্ড মার্সেলের স্মার্ট টিভিতে এবার যুক্ত হলো তিন ধরণের ল্যাঙ্গুয়েজ সিলেকশন অপশন। বাংলা, ইংরেজি ও হিন্দি। এই তিনটি ভাষার যে কোনো কন্টেন্ট ইউটিউব বা ইন্টারনেট ব্রাউজারে খোঁজার ক্ষেত্রে গ্রাহক শুধু ভয়েস কমান্ড দিলেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে সংশ্লিষ্ট কন্টেন্ট চলে আসবে। টাইপ করে খুঁজতে হবে না। এই নতুন প্রযুক্তির স্মার্ট টিভি চলতি মাসেই বাজারে ছাড়বে বলে জানিয়েছে মার্সেল কর্তৃপক্ষ।

মার্সেল টিভি গবেষণা ও উন্নয়ন বিভাগের ইনচার্জ প্রকৌশলী এনামুল হাসান জানান, মায়ের ভাষা ‘বাংলা’ সিলেকশন অপশন যুক্ত করা হয়েছে মার্সেলের স্মার্ট টিভিতে। এর ফলে, স্মার্ট টিভিতে বাংলা কন্টেন্ট প্রয়োজন হলে, গ্রাহককে টিভির রিমোর্ট বাটনে আর টাইপ করতে হবে না। গ্রাহক ‘হ্যালো মার্সেল’ বললেই আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স (অও) ভয়েস রিসিভার অ্যাকটিভ বা সচল হয়ে যাবে। এরপর প্রয়োজনীয় কন্টেন্টটি বাংলায় বললেই তা স্বয়ংক্রিয়ভাবে ইন্টারনেট ব্রাউজার অথবা ইউটিউবে চলে আসবে। শুধু বাংলাই নয়; ভয়েস কমান্ডের মাধ্যমে সিলেক্ট করা যাবে হিন্দি ও ইংরেজি কন্টেন্টও।

মার্সেলের হেড অব সেলস ড. মো. সাখাওয়াৎ হোসেন বলেন, উদ্ভাবনী ও লেটেস্ট প্রযুক্তি সংযোজনে মাধ্যমে স্মার্ট টিভিতে আরো গ্রাহকবান্ধব করতে কাজ করছে মার্সেল আরএনডি বিভাগের প্রকৌশলীরা। এরই ধারাবাহিকতায় গ্রাহকদের জন্য তারা এবার স্মার্ট টিভিতে বাংলা ভাষা অপশনের মতো উদ্ভাবনী ফিচার যুক্ত করেছে। গ্রাহকরা চলতি মাসেই নতুন এই স্মার্ট টিভিটি পাবেন বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

গাজীপুরের চন্দ্রায় স্থাপিত টিভি ম্যানুফ্যাকচারিং ইউনিটে আইএসও ক্লাস সেভেন ডাস্ট ফ্রি ক্লিন রুমে অত্যাধুনিক প্রযুক্তির এইচএডিএস (হাই অ্যাডভান্স সুপার ডাইমেনশন সুইচ) এবং আইপিএস (ইন প্ল্যান সুইচিং) প্যানেল তৈরি করছে মার্সেল। কারখানায় রয়েছে টিভির মাদারবোর্ড, ডিসপ্লে, রিমোট, স্পিকার, কেসিং অ্যান্ড হাউজিংসহ আনুষঙ্গিক পার্টস তৈরির আলাদা প্রোডাকশন লাইন। সেখানে জার্মান প্রযুক্তির সারফেস মাউন্টিং টেকনোলজিসহ বিশ্বের লেটেস্ট সব প্রযুক্তির মেশিনারিজ স্থাপন করা হয়েছে। সেসব যন্ত্রপাতি দিয়ে বিশ্বের অত্যাধুনিক প্রযুক্তি, বৈচিত্র্যময় ডিজাইন ও ফিচারের আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন টেলিভিশন তৈরি করছে মার্সেল।
 
বিডি প্রতিদিন/ফারজানা


আপনার মন্তব্য