শিরোনাম
প্রকাশ : ৪ আগস্ট, ২০২০ ১৩:৩৬

মানিকগঞ্জের বেউথা ব্রিজে দর্শনার্থীর ভিড়

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি

মানিকগঞ্জের বেউথা ব্রিজে দর্শনার্থীর ভিড়

বন্যা, করোনায় দমাতে পারেনি মানিকগঞ্জের বিনোদন পিপাসুদের। মানিকগঞ্জে বিনোদনের কোনও ব্যবস্থা না থাকায় ঈদের আনন্দ উপভোগ করতে প্রতিদিনই লোকজন জড়ো হচ্ছে শহরের বেউথা কালীগঙ্গা ব্রিজে।

সরেজমিনে দেখা যায়, বেউথা ব্রিজে প্রচুর লোকের সমাগম। তবে কেউ সামাজিক দূরত্ব মানছে না। কারো কারো মুখে মাস্ক থাকলেও অনেকেই মাস্ক ছাড়া। আবার কেউ মাস্ক পরে আছেন থুতনিতে অথবা গলায়। দ্রুত গতিতে ব্রিজের ওপর অপ্রয়োজনে  কিছু লোকজন মোটর সাইকেল চালাচ্ছে। আবার ব্রিজের ওপর  ভারী যানবাহন রেখে দিয়েছে অনেকে ফলে যানজটের  সৃষ্টি হচ্ছে।

মানিকগঞ্জের বেশির ভাগ এলাকাই বন্যা কবলিত। মাঠ, রাস্তাঘাট, পানিতে ডুবে আছে। পানি কমে যাওয়ায় কিছু কিছু  জায়গা জেগে উঠলেও ময়লা আবর্জনায় ভরা। তাই জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে নারী-পুরুষ-শিশুসহ পরিবারের লোকজন নিয়ে কালীগঙ্গা ব্রিজে আসছেন ঈদের আনন্দ উপভোগ করতে। 

পাটুরিয়া থেকে স্ত্রী সন্তান নিয়ে বেড়াতে আসা বেলায়েত হোসেন বলেন, আমি টাকায় চাকরি করি। আর মাত্র তিনদিন ছুটি আছে স্ত্রীর অনুরোধ এই ব্রিজে এসেছি। নদীর পানি ছাড়া দেখার কিছু নেই। সম্পূর্ণ ব্রিজটি হেঁটে দেখলাম ভালই লাগলো। আমার স্ত্রী এবং ৯ বৎসরের মেয়ে খুবই খুশি। তবে ব্রিজের উপর দিয়ে বেপরোয়াভাবে মোটর সাইকেল চলাচল করার কারণে আতঙ্কে ছিলাম।

শহর থেকে স্ত্রী নিয়ে ঘুরতে আসা কামরুদ্দিন রেজা বলেন, অনেক লোকজন এখানে আসেন কোনও পারেই বসার কোনও ব্যবস্থা নেই, নেই কোনও বাথরুম। এ কারণে বিড়ম্ভনায় পড়তে হচ্ছে আগতদের।

মানিকগঞ্জ সদর থানার ওসি ( তদন্ত) নজরুল ইসলাম জানান, ঈদ উপলক্ষে কালীগঙ্গা ব্রিজের উপর প্রতিদিন প্রচুর দর্শনার্থী আসছেন।তাদের নিরাপত্তায় ব্রিজের দু’পাশেই পুলিশ রয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর