শিরোনাম
প্রকাশ : ২৯ অক্টোবর, ২০২০ ১৯:৩২

নোয়াখালীতে মাদ্রাসা ছাত্রী অপহরণের ২৩ দিন পর উদ্ধার

নোয়াখালী প্রতিনিধি

নোয়াখালীতে মাদ্রাসা ছাত্রী অপহরণের ২৩ দিন পর উদ্ধার

নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার চরজব্বর ইউনিয়নের উত্তর চর বাগ্যা থেকে ৫ম শ্রেণির মাদ্রাসা ছাত্রীকে অপহরণের ২৩ দিন পর উদ্ধার করেছে জেলা ডিবি পুলিশ। বুধবার রাতে আসামি মোঃ সুমনের বাড়ি থেকে ভিকটিম ছাত্রীকে উদ্ধার করা হয়। বৃহস্পতিবার বিকালে আদালতে ভিকটিমকে উঠানো হয়েছে। 

ভিকটিমের পিতা মোঃ হোসেন আলী নোয়াখালী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল নং ২ এ বাদী হয়ে সুমন সহ পাঁচজনকে আসামি করে অপহরণের মামলা করে। আদালতের নির্দেশে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ডিবি পুলিশ ২৩ দিন পর ভিকটিমকে উদ্ধার করে। বৃহস্পতিবার বিকালে আদালতে ভিকটিমকে উঠানো হয়েছে।  

ভিকটিমের পিতা জানান, ঘটনার দিন অর্থাৎ চলতি মাসের ৫ অক্টোবর ভিকটিম বাড়ি থেকে মাদ্রাসা যাওয়ার পথে বখাটে সুমন, নেছার ও রুবেল এর নের্তৃত্বে ৫ জন ছাত্রীকে জোরপুর্বক সিএনজি উঠিয়ে অপহরণ করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায়। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তাকে পাওয়া যায়নি। পরে স্থানীয় মানবাধিকারের সহযোগীতায় ভিকটিমের পিতা আদালতে মামলা করলে অবশেষে ২৩ দিন পর ডিবি পুলিশের তদন্ত কর্মকর্তা জাকির হোসেনের নের্তৃত্বে পুলিশ তাকে উদ্ধার করলেও ঘটনার সাথে জড়িতদেরকে গ্রেফতার করতে পারেনি। 

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ডিবি পুলিশের তদন্ত কর্মকর্তা জাকির হোসেন সত্যতা স্বীকার জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আসামি সুমনের বাড়ি তাকে উদ্ধার করা হয়েছে এবং ভিকটিমকে আদালতে উঠানো হয়েছে। 


বিডি প্রতিদিন/ ওয়াসিফ


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর