Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা
আপলোড : ৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:৩৮

নারী ফুটবল দলের সাফল্য

অধ্যবসায়ী হলে সাফল্য ধরা দেবেই

নারী ফুটবল দলের সাফল্য

ছেলেদের ফুটবলে যখন ঘোর দুর্দিন, ভুটানের মতো দলের কাছেও যখন বাংলাদেশকে গো-হারা হারতে হয়েছে তখন মেয়েদের ফুটবলে অর্জিত হয়েছে চমক লাগা সাফল্য। অনূর্ধ্ব ১৬ এএফসি চ্যাম্পিয়ন টুর্নামেন্টের বাছাই পর্বে সি গ্রুপের অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েছে তারা। এ সাফল্যের মাধ্যমে বাংলাদেশ উন্নীত হয়েছে চূড়ান্ত পর্বে। চূড়ান্ত পর্বের অন্য দলগুলো হলো উত্তর কোরিয়া, জাপান, চীন, থাইল্যান্ড, দক্ষিণ কোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া ও লাওস। সি গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় চীনে অনুষ্ঠিতব্য চ্যাম্পিয়নশিপের চূড়ান্ত পর্বে তারা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। সি গ্রুপের অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করলেও আসর শুরুর আগেও ফেভারিট ছিল না বাংলাদেশ। প্রথম ম্যাচে ফেবারিট ইরানকে ৩-০ গোলে হারিয়েই স্বপ্ন দেখতে শুরু করে বাংলাদেশের মেয়েরা। ইরানকে হারানোর পর আর পেছনে ফিরে তাকায়নি কোচ গোলাম রব্বানী ছোটনের শিষ্যরা। দ্বিতীয় ম্যাচে তারা ৫-০ গোলে হারায় সিঙ্গাপুরকে। তৃতীয় ম্যাচে কিরগিজস্তানকে ১০ গোলে হারিয়ে চমক দেখান কৃষ্ণা মার্জিয়া তহুরা শামসুন্নাহাররা। এরপর চতুর্থ ম্যাচে টুর্নামেন্টের আরেক অপরাজিত দল চাইনিজ তাইপের মুখোমুখি হয়। দুই দল মুখোমুখি হওয়ার আগে সমীকরণ ছিল, যে দল জিতবে তারাই যাবে চূড়ান্ত পর্বে। এমন সমীকরণের ম্যাচে শুরুতে গোল খেলেও বাংলাদেশের মেয়েরা ভেঙে পড়েনি। শেষ পর্যন্ত ৪-২ গোলে ম্যাচ জিতে তারা মাঠ ছাড়ে। সে সঙ্গে এক ম্যাচ হাতে রেখেই সি গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার কৃতিত্ব দেখায়। সোমবার আনুষ্ঠানিকতার ম্যাচে তারা ৪-০ গোলে হারায় আরব আমিরাতকে। বাংলাদেশের মেয়েরা প্রমাণ করেছে অধ্যবসায়ী হলে অসাধ্য বলে কিছু থাকে না। পুরুষদের ফুটবলে চীনা তাইপে, ইরান ইত্যাদি দেশের সঙ্গে বাংলাদেশের আকাশ-পাতাল দূরত্ব থাকলেও অনূর্ধ্ব ১৬ মেয়েদের ফুটবলে তারা পাত্তাই পায়নি বাংলাদেশের কাছে। বাংলাদেশকে বলা হয় পুরুষতান্ত্রিক সমাজের দেশ। কিন্তু সবাইকে তাজ্জব করে আড়াই দশকেরও বেশ সময় ধরে বাংলাদেশের সরকার ও বিরোধী দলের নেতৃত্বে ঘুরেফিরে নেতৃত্ব দিচ্ছেন

নারী নেত্রীরা। দেশের প্রধান রপ্তানি পণ্য তৈরি পোশাক শিল্পের সিংহভাগ শ্রমিকই নারী।  ফুটবলে বাংলাদেশের অবস্থান যখন সবচেয়ে পেছনের দিকে তখন মেয়েরা দেখিয়ে দিল ইচ্ছা থাকলে জেতা কঠিন কিছু নয়। মেয়ে ফুটবলারদের আমাদের অভিনন্দন।


আপনার মন্তব্য