Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০৬:০০
আপডেট : ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১১:৩৭

যে কাজটি করে সবার মন জয় করলেন তাপসি

অনলাইন ডেস্ক

যে কাজটি করে সবার মন জয় করলেন তাপসি

বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী তাপসি। ‘পিঙ্ক’ ছবির পর থেকেই তার জনপ্রিয়তা তুঙ্গে। ছবিতে এক স্বাধীনচেতা তরুণীর ভূমিকায় অভিনয় করে এই প্রজন্মের অনেকের কাছেই রোল মডেল হয়ে উঠেছেন তিনি। তবে রিল লাইফের মতো বাস্তবেও যে তিনি একই রকম স্বাধীনচেতা তাই প্রমাণ করলেন তাপসি। ফেয়ারনেস ক্রিমে অনাস্থা জানিয়ে এক অনুষ্ঠান বাতিল করলেন তিনি।

প্রচারের আলো সকল অভিনেতা-অভিনেত্রীরই কাম্য। তবে কোন আদর্শের জন্য তা ছেড়ে দেওয়া মোটেও সহজ কম্য নয়। ঠিক সেই কাজটিই করলেন অভিনেত্রী। আগামী মার্চে জয়পুরে একটি অনুষ্ঠান করার কথা ছিল তাপসির। প্রথমে তাতে সম্মতি দিয়েছিলেন। কিন্তু পরে জানতে পারেন যে অনুষ্ঠানটির সঙ্গে যুক্ত একটি ফেয়ারনেস ব্র্যান্ড।

অনুষ্ঠানের শর্ত অনুযায়ী ব্র্যান্ডের সঙ্গে ছবিও তুলতে হত তাকে। অর্থাৎ পরোক্ষে প্রমোট করতে হত ব্র্যান্ডটিকে। এ কথা জেনেই মত বদল করেন তাপসি। আয়োজকদের জানিয়ে দেন অনুষ্ঠানে তিনি থাকছেন না।

বলিউডে নন্দিতা দাসের মতো অভিনেত্রী বরাবরই এই ফর্সা করার ক্রিমের বিরুদ্ধে প্রচার চালিয়েছেন। ফর্সা বা কালোর উপর যে নারীর কৃতিত্ব নির্ভর করে না, তা বরাবরই বলে এসেছেন তিনি। বহু অভিনেতা, অভিনেত্রীই এই প্রচারে শামিল হয়েছিলেন। এবার সে তালিকায় যুক্ত হলেন তাপসিও। কোন ভাবেই এই বর্ণবিদ্বেষকে প্রশ্রয় দিতে নারাজ তিনি। এর পিছনে কারণও আছে। তিনি নিজেও এর শিকার হয়েছেন। তবে একটু অন্যভাবে। কালো বলে নয়, ফর্সা বলেই তাকে বেশ কয়েকটি ছবি থেকে বাদ পড়তে হয়েছিল। আর তাই ফর্সা বা কালো হোক, এই ধারণার প্রচারে তিনি কোন ভাবেই অংশ নিতে চান না।

‘পিঙ্ক’ ছবির পর থেকে এই মুহূর্তে বলিউডের অন্যতম ব্যস্ত অভিনেত্রী তাপসি। আপাতত তাই নিজের কাজেই মনোযোগ দিতে চান তিনি।

বিডি-প্রতিদিন/ ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭/ সালাহ উদ্দীন

আপনার মন্তব্য