Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ১৩ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৩ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০৮

হরতালের প্রভাব পড়েনি নগরজীবনে

বিএনপির সমর্থন ৪ ঘণ্টা পর

নিজস্ব প্রতিবেদক

হরতালের প্রভাব পড়েনি নগরজীবনে

বিএনপির সমর্থন দেওয়ার পরও গতকাল জামায়াতের ডাকা দেশব্যাপী সকাল-সন্ধ্যা হরতাল সফল হয়নি। রাজধানীসহ কোথাও হরতালের প্রভাব পড়েনি। সবখানে জনজীবন ছিল স্বাভাবিক। তবে হরতাল ডাকাকে কেন্দ্র করে দেশের বিভিন্নস্থানে জামায়াত-বিএনপির অর্ধ শতাধিক নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

জামায়াতে ইসলামীর আমির মকবুল আহমাদসহ জামায়াতের কেন্দ্রীয় নেতা-কর্মীদের গ্রেফতার ও রিমান্ডে নেওয়ার প্রতিবাদে গত মঙ্গলবার এক বিবৃতির মাধ্যমে গতকালের এই হরতালের ডাক দেয় দলটির ভারপ্রাপ্ত আমির অধ্যাপক মুজিবুর রহমান। গতকাল হরতাল শুরুর চার ঘণ্টা পর সেই হরতালের প্রতি সমর্থন ঘোষণা করে বাংলাদেশের জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)। সকাল ১০টার দিকে নয়াপল্টন দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ সমর্থনের কথা জানান দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ। এর আগে সকাল ৬টায় শুরু হয় জামায়াতের সকাল-সন্ধ্যা হরতাল। রিজভী বলেন, বিএনপি নীতিগতভাবে জামায়াতের ডাকা হরতালকে সমর্থন করে। ২০-দলীয় জোট সমর্থন করে কিনা প্রশ্নের জবাবে রিজভী বলেন, এ বিষয়ে এখনো জোটের নেতাদের সঙ্গে কথা হয়নি। এদিকে হরতালের সময় রাজধানীতে যথারীতি স্কুল-কলেজ চলেছে। অফিস আদালত ও ভূমি অফিসে স্বাভাবিক কাজ কর্ম চলেছে। দোকান-পাট ও শপিং মল খুলেছে। ক্রেতারা স্বাচ্ছন্দ্যে মার্কেটিং করেছেন। যানবাহন চলাচলে কোনো বিঘ্ন ঘটেনি। গুলিস্তান, যাত্রাবাড়ী, পল্টন, কাকরাইল, কারওয়ান বাজার এলাকায় যানজটও দেখা গেছে। হরতাল সম্পর্কে আমাদের নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর— চট্টগ্রাম : চট্টগ্রামে জামায়াতের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল হয়নি। সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত নগরজীবনে হরতালের কোনো প্রভাব ছিল না। সব কিছুই চলেছে স্বাভাবিকভাবে। সড়কে ছিল গণপরিবহন, খোলা ছিল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। কোথাও কোনো বিশৃঙ্খলাও ঘটেনি। নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ ও অভিযান) সালেহ মোহাম্মদ তানভির বলেন, গতকাল সকাল থেকে কোথাও কোনো বিশৃঙ্খলা হয়নি। স্বাভাবিকভাবে গাড়ি চলাচল করেছে। অপ্রীতিকর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে পুলিশ প্রস্তুত ছিল। ডবলমুরিং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মহিউদ্দিন সেলিম বলেন, শেখ মুজিব রোডের চৌমুহনী এলাকায় ১০ নম্বর বাস একটি রিকশাকে ধাক্কা দিলে রিকশায় থাকা যুবক উত্তেজিত হয়ে বাসের কাচ ভাঙচুর করে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ওই যুবককে আটক করে থানায় নিয়ে এসেছে। এদিকে চট্টগ্রাম মহানগরের বাকলিয়া থানাধীন কালামিয়া বাজার এলাকায় হরতালের আগের রাতে অভিযান চালিয়ে বাকলিয়া থানা জামায়াতের আমির আবুল মনসুরসহ তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ। বরিশাল : জামায়াতের হরতালে তেমন কোনো প্রভাব পড়েনি বরিশালের জনজীবনে। বরিশাল থেকে দূরপাল্লা এবং অভ্যন্তরীণ রুটের বাস ও লঞ্চ চলাচল ছিল স্বাভাবিক। নগরীর সব ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের বেচা-কেনাও ছিল স্বাভাবিক। এদিকে মিছিলের চেষ্টা করার সময় পুলিশ তিন শিবির কর্মীকে আটক করেছে। গাইবান্ধা : সকাল-সন্ধ্যা হরতালের কোনো প্রভাব পড়েনি গাইবান্ধায়। তবে বুধবার রাতে দলটির দুই নেতাকে গোবিন্দগঞ্জের নিজবাড়ি থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। চাঁদপুর : চাঁদপুরে জামায়াতের ডাকা হরতাল ঢিলেঢালাভাবে হয়েছে। সবকিছু স্বাভাবিক চললেও দূরপাল্লার বাস চলেছে কম। এ ছাড়া দলের অল্প সংখ্যক নেতা-কর্মী সকালে শহরের ট্রাক রোড থেকে একটি ঝটিকা মিছিল বের করে। মিছিলটি বঙ্গবন্ধু সড়কের মাথায় এলে পুলিশের তাড়া খেয়ে সেটি ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। চাঁপাইনবাবগঞ্জ : চাঁপাইনবাবগঞ্জে জামায়াত আহূত সকাল-সন্ধ্যা হরতাল হয়নি। সড়ক-মহাসড়কগুলোতে সকাল থেকেই যানবাহন স্বাভাবিক ছিল। সব মার্কেট ও বিপণিবিতান খোলা ছিল। সোনামসজিদ স্থলবন্দরেও স্বাভাবিক কার্যক্রম চলেছে। জামায়াতের কোনো পিকেটারকেও রাজপথে দেখা যায়নি। লক্ষ্মীপুর : হরতালের সমর্থনে কোথাও কোনো পিকেটিং কিংবা জামায়াত শিবিরের কোনো নেতা-কর্মীকে মাঠে দেখা যায়নি। কোথাও কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনারও খবর পাওয়া যায়নি। হরতালে সব কিছুই স্বাভাবিকভাবে চলেছে। নাটোর : হরতালে নাশকতা সৃষ্টির আশঙ্কায় নাটোরে জামায়াতের তিন কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার রাতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। সিরাজগঞ্জ : গতকাল সিরাজগঞ্জ সদর ও উল্লাপাড়ায় অভিযান চালিয়ে জামায়াত-বিএনপির ৯ নেতা-কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হেলাল উদ্দিন জানান, সকালে পৌর এলাকার মালসাপাড়ায় অভিযান চালিয়ে জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম আহ্বায়ক মুরাদুজ্জামান মুরাদকে আটক করা হয়। তার বিরুদ্ধে ৩২টি মামলা রয়েছে। উল্লাপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দেওয়ান কওশিক আহমেদ জানান, উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে জামায়াতের আমির নুরুল ইসলামসহ আটজনকে আটক করা হয়েছে।

রাজশাহী : পুঠিয়ায় নাশকতার অভিযোগে ইউনিয়ন জামায়াতের সেক্রেটারি আরিফুল ইসলামকে (৩৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার গভীর রাতে উপজেলার বানেশ্বরে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় : জামায়াতের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) কোনো প্রভাব পড়েনি। হরতালের সমর্থনে কোনো ধরনের মিছিল ও সমাবেশও হয়নি। প্রশাসনিক ও একাডেমিক কার্যক্রম চলেছে স্বাভাবিক নিয়মে। রাবির সব বিভাগের ক্লাস-পরীক্ষা যথাসময়ে হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের সব বাস যথা সময়ে সব রুটে চলাচল করেছে। রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) : রায়পুর উপজেলায় জামায়াতের ডাকা হরতাল ঢিলেঢালাভাবে পালিত হয়েছে। স্কুল-কলেজ, দোকান-পাট, অফিস-আদালত স্বাভাবিক নিয়মে চলছে। হরতালের পক্ষে কোনো মিছিল, মিটিং কিংবা পিকেটিং করতে দেখা যায়নি। এদিকে হরতালকে কেন্দ্র করে বুধবার গভীর রাতে পুলিশ রায়পুর উপজেলার বিভিন্নস্থানে অভিযান চালিয়ে জামায়াতের পাঁচ নেতা-কর্মীকে আটক করেছে। বদরগঞ্জ (রংপুর) : বদরগঞ্জে আবদুল হালিম সরকার (৫৫) নামে এক জামায়াত নেতাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বতিনি রামনাথপুর ইউনিয়নের জামায়াতের সেক্রেটারি। বদরগঞ্জ থানার ওসি আখতারুজ্জামান প্রধান জানান, তিনি বিস্ফোরক ও নাশকতা মামলার আসামি। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাকে গ্রেফতার করা হয়। চুয়াডাঙ্গা : দামুড়হুদা পুলিশ বুধবার রাতে অভিযান চালিয়ে জামায়াতের চারজন নেতা-কর্মীকে আটক করেছে। থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু জিহাদ মোহাম্মদ ফকরুল আলম খান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে দামুড়হুদা উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে চারজনকে আটক করে। নোয়াখালী : নাশকতার আশঙ্কায় নোয়াখালীর বিভিন্ন উপজেলায় পুলিশের বিশেষ অভিযানে বিএনপি ও জামায়াত-শিবিরের ৩১ নেতা-কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার রাত থেকে গতকাল দুপুর পৌনে ১২টা পর্যন্ত পুলিশ এই ৩১ জনকে আটক করে। আটককৃতদের মধ্যে জেলা যুবদলের সভাপতি মাহবুব আলমগীর আলো, সুধারাম থানা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক ভিপি জসিম উদ্দিনও রয়েছেন। বগুড়া : বগুড়ায় জামায়াতের ডাকা হরতাল সাড়া পায়নি। ফলে জনজীবন স্বাভাবিক ছিল। কোথাও কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। ভোর থেকে সারা দিনব্যাপী মানুষের চলাচল স্বাভাবিক থাকায় বগুড়া শহরের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ ব্যাংক, বীমা, অফিস-আদালত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা ছিল। তবে পুলিশ জেলার বিভিন্ন থানা এলাকা থেকে বিশেষ অভিযান চালিয়ে ২০ জনকে আটক করেছে। কুমিল্লা : লাকসাম উপজেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে জামায়াতের ইউনিয়ন আমিরসহ জামায়াত-শিবিরের ছয় নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার রাতে ও গতকাল সকালে উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে তাদের ধরা হয়।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর