শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ৩১ জুলাই, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৩০ জুলাই, ২০১৯ ২৩:৫১

চার্জশিটে সাবেক এমপি ও পুলিশের নাম বাদ

সাঁওতালদের বিক্ষোভ মিছিল-সমাবেশ

গাইবান্ধা প্রতিনিধি

গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় রংপুর চিনিকলের সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম এলাকায় সাঁওতালপল্লীতে আগুন দেওয়া এবং তিন সাঁওতাল হত্যা মামলার চূড়ান্ত অভিযোগপত্রে এজাহারভুক্ত আসামি সাবেক সংসদ সদস্য আবুল কালাম আজাদ ও জড়িত পুলিশের নাম বাদ দেওয়ার প্রতিবাদে সাঁওতাল ও বাঙালিরা গাইবান্ধা শহরে গতকাল বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে। সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম-ভূমি উদ্ধার সংগ্রাম কমিটি এই কর্মসূচির উদ্যোক্তা। মিছিল শেষে দোষীদের বিচার দাবিতে প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে রচিত একটি স্মারকলিপি জেলা প্রশাসকের কাছে দেওয়া হয়। পরে, ডিবি রোডে ১ নম্বর ট্রাফিক মোড়ে প্রতিবাদ সমাবেশ করা হয়। সংগ্রাম কমিটির সভাপতি ফিলিমন বাসকের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তৃতা করেন আদিবাসী বাঙালি সংহতি পরিষদের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম বাবু, জাফরুল ইসলাম প্রধান, সাঁওতাল হত্যা মামলার বাদী থমাস হেমব্রম, আদিবাসী নেত্রী রোমেলা কিসকু প্রমুখ। বক্তারা বলেন, ঘটনার প্রায় তিন বছর পর গত ২৮ জুলাই পিবিআই আদালতে চূড়ান্ত চার্জশিট দাখিল করে। চার্জশিটে ঘটনার সঙ্গে সরাসরি যুক্ত এজাহারভুক্ত আসামি গোবিন্দগঞ্জ আসনের তৎকালীন এমপি আবুল কালাম আজাদ ও প্রকাশ্যে সাঁওতালদের বাড়ি-ঘরে অগ্নিসংযোগকারী পুলিশসহ গুরুত্বপূর্ণ আসামিদের নাম বাদ দেওয়া হয়েছে। তারা আরও বলেন, বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত আগুন লাগানোর ফুটেজ, ছবি প্রকাশ পেলেও পিবিআই তদন্তকারী কর্মকর্তারা তা এড়িয়ে গেছেন। এ থেকে অনুমিত হয় পুলিশ প্রভাবিত হয়ে এই চার্জশিট দিয়েছে। তাই তারা পিআইবির প্রতিবেদনকে প্রত্যাখ্যান করেন।


আপনার মন্তব্য