শিরোনাম
প্রকাশ : ৬ জুলাই, ২০২০ ১১:২৭

শুল্ক ফাঁকির অভিযোগে রাজস্ব বোর্ডে হাজিরা দিলেন দেশ সেরা শুটাররা!

অনলাইন ডেস্ক

শুল্ক ফাঁকির অভিযোগে রাজস্ব বোর্ডে হাজিরা দিলেন দেশ সেরা শুটাররা!
ফাইল ছবি

বিদেশ থেকে ১৪টি এয়ার রাইফেল আনলেও সঠিক নিয়মে শুল্ক দেননি বলে দেশ সেরা শুটারদের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে। ফলে শুল্ক ফাঁকির অভিযোগে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডে হাজিরা দিলেন তারা। তবে, ফেডারেশনের কর্মকর্তাদের দ্বন্দ্বের কারণেই তাদের বিরুদ্ধে এ ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে বলে দাবি শুটারদের। এমন পরিস্থিতিতে ইমেজ রক্ষায় ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করলেন তারা।

শ্যুটারদের শুটিংয়ের জন্য প্রয়োজন অত্যাধুনিক অস্ত্রশস্ত্র। তবে, এসব পাওয়া যায় না আমাদের দেশে। বেশিরভাগ সময়েই নানাভাবে বিভিন্ন দেশ থেকে নিজ দায়িত্বে এগুলো যোগাড় করেন শুটাররা। বাংলাদেশ সরকারের আইন অনুযায়ী কিছু শুল্ক দেয়ার কথা থাকলেও, নানা ফাঁকফোকর দিয়ে এগুলো আনা হতো। তথ্যগুলো সবই পুরানো। শুটিং পাড়ার ওপেন সিক্রেট। এবার এগুলো নিয়েই বাঁধলো বিপত্তি। ফেডারেশনের বড় দুই কর্তার রেষারেষির বলি হলেন দেশের শুটাররা। 

জাতীয় রাজস্ব বোর্ড শুল্ক ফাঁকির অভিযোগ আনলো তাদের বিরুদ্ধে। ছয়জনকে চিঠি দিয়ে ডাকাও হলো সদর দপ্তরে। কোভিড-১৯ মতো মহামারি চলাকালে স্বশরীরে হাজিরা দিতেও বাধ্য করা হলো তাদের। যেটা বেশ হতাশ করেছে শুটারদের। 

তারা বলেন, আমরা এসব তদন্ত বুঝি না। আমরা শুধু খেলতে জানি। আমরা দেশের জন্যই খেলি। আমাদের ভেতর একটা মানসিক চাপ ঢুকে গেছে। এমন পরিস্থিতিতে আমাদের পরতে হবে, তা কখনোই আশা করিনি। এছাড়া ফেডারেশনের কর্মকর্তাদের কাউকে পাশে না পেয়ে অবাক হয়েছেন শ্যুটাররা। বাধ্য হয়ে তাই এবার ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের হস্তক্ষেপ কামনা করলেন তারা।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সাল থেকে বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে ১৪টি এয়ার রাইফেল আনেন শুটাররা। যেগুলোর প্রত্যেকটিতেই শুল্ক ফাঁকি দেয়া হয়েছে বলে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড অভিযোগ করেছে।


বিডি প্রতিদিন/ ওয়াসিফ


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর