Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ৩ নভেম্বর, ২০১৯ ১৯:৪০
আপডেট : ৩ নভেম্বর, ২০১৯ ১৯:৪৮

সিলেটে যুবদলের কমিটি নিয়ে অসন্তোষ

আরিফসহ চার নেতার পদত্যাগপত্র ফিরিয়ে দিলেন ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট:

আরিফসহ চার নেতার পদত্যাগপত্র ফিরিয়ে দিলেন ফখরুল

সিলেট জেলা ও মহানগর যুবদলের কমিটি নিয়ে অসন্তোষ দেখা দিয়েছে সিলেট বিএনপিতে। সিলেটের নেতাদের সাথে আলোচনা ছাড়াই যুবদলের কমিটি দেওয়ায় ক্ষুব্ধ বিএনপির অনেক নেতা। যেসব নেতাকর্মী দীর্ঘদিন ধরে রাজপথে আন্দোলন করে আসছেন তাদেরকে স্থান দেওয়া হয়নি কমিটিতে, এমন দাবিও বিএনপি নেতাদের। 

এই ক্ষোভ থেকে রবিবার বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য পদ থেকে পদত্যাগ করতে যান সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। তার সাথে পদত্যাগপত্রে স্বাক্ষর করেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সংসদের আরও তিন নেতা। কিন্তু মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর তাদের পদত্যাগপত্র গ্রহণ করেন নি। যুবদলে ত্যাগীদের মূল্যায়নের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ফিরিয়ে দিয়েছেন তাদেরকে।

পদত্যাগপত্রে স্বাক্ষরকারী অন্য তিন নেতা হলেন- কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ ক্ষুদ্র ঋণ বিষয়ক সম্পাদক আবদুর রাজ্জাক, সহ স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট সামসুজ্জামান জামান ও কেন্দ্রীয় সদস্য ডা. শাহরীয়ার হোসেন চৌধুরী। এর মধ্যে এডভোকেট সামসুজ্জামান জামান ছাড়া বাকি তিনজন গিয়েছিলেন মহাসচিবের কাছে। 

১৯ বছর পর গত শুক্রবার বিকেলে সিলেট জেলা ও মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়। ছাত্রদলের সাবেক কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান পাপলুকে আহ্বায়ক ও জেলা ছাত্রদলের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মকসুদ আহমদকে সদস্য সচিব করে জেলা যুবদলের ২৯ সদস্যের কমিটি ঘোষণা করা হয়। একই দিন সাবেক ছাত্রদল নেতা নজিবুর রহমান নজিবকে আহ্বায়ক আর শাহনেওয়াজ বখত তারেককে সদস্য সচিব করে কেন্দ্র থেকে ২৯ সদস্যের মহানগর কমিটি ঘোষণা করা হয়। এই কমিটি দুটি ঘোষণার পর সিলেটে বিদ্রোহ দেখা দেয়।

মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী জানান, যারা দীর্ঘদিন থেকে যুবদলের ব্যানারে রাজপথে আন্দোলন করে আসছে তাদেরকে অবমূল্যায়ন করে এই কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। কমিটি গঠনের আগে সিলেটের কোন নেতার সাথেও আলাপ-আলোচনা করা হয়। কাউকে কিছু না জানিয়ে ঢাকা থেকে কমিটি চাপিয়ে দেওয়ায় সিলেটে বিএনপি ও যুবদলের নেতাকর্মীদের মাঝে ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে। বিএনপি নেতারাও এতে অপমানবোধ করে কেন্দ্রীয় কমিটি থেকে পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সাথে সাক্ষাত করা বিএনপির কেন্দ্রীয় সদস্য ডা. শাহরীয়ার হোসেন চৌধুরী জানান, যুবদলের কমিটি নিয়ে অসন্তোষের কথা জানাতে তারা দলের মহাসচিবের কাছে গিয়েছিলেন। তারা পদত্যাগ করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু মহাসচিব কমিটির বিষয়টি দেখবেন বলে তাদেরকে আশ্বস্থ করে ফিরিয়ে দিয়েছেন। 

বিডি প্রতিদিন/মজুমদার


আপনার মন্তব্য