শিরোনাম
প্রকাশ : ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ ২১:৫৭

শিলংয়ে কারফিউ বহাল, কমেছে পর্যটক

পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হলো ডাউকি সীমান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট

পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হলো ডাউকি সীমান্ত
ফাইল ছবি

একদিন বন্ধ থাকার পর পর্যটকদের জন্য ফের খুলে দেওয়া হয়েছে ভারতের ডাউকি সীমান্ত। শনিবার সকাল সাড়ে ১১টা থেকে তামাবিলে বাংলাদেশের ইমিগ্রেশন শেষ করে ডাউকি সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশ করেছেন পর্যটকরা। তবে ভারতের মেঘালয় রাজ্যের শিলংয়ে কারফিউ বহাল থাকায় ডাউকি সীমান্ত দিয়ে ভারতগামী পর্যটকদের সংখ্যা কমে গেছে। 

তামাবিল ইমিগ্রেশন অফিস সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সকাল সাড়ে ১১টা থেকে সীমান্তের ওপারে ভারতের ডাইকি ইমিগ্রেশন তাদের কার্যক্রম শুরু করে। ফলে বাংলাদেশ থেকে পর্যটকরা ডাইকি সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশের সুযোগ পান। এই সীমান্ত দিয়ে যাওয়া পর্যটকরা সাধারণত মেঘালয় রাজ্যের রাজধানী শিলং বেড়াতে গিয়ে থাকেন।

এদিকে, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (এনআরসি) নিয়ে এখনো বিক্ষোভ চলছে মেঘালয়ে। পরিস্থিতি সামাল দিতে শিলংয়ে জারি করা হয়েছে কারফিউ। শনিবারও কারফিউ বহাল ছিল। যে কারণে বাংলাদেশ থেকে যেসব পর্যটক শিলং বেড়াতে গেছেন তাদেরকে তামাবিল ইমিগ্রেশন থেকে সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে। শিলংয়ে নিজেদের নিরাপত্তার ব্যাপারে তাদেরকে সতর্ক থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

শিলংয়ে কারফিউ জারির কারণে গত শুক্রবার ডাউকি সীমান্ত দিয়ে পর্যটক প্রবেশ বন্ধ করে দিয়েছিল ভারতের মেঘালয় সরকার। ফলে শুক্রবার তামাবিল থেকে ফিরে আসেন তিনশতাধিক পর্যটক। শিলংয়ে কারফিউ জারি ও ডাউকি সীমান্ত বন্ধের খবরে পর্যটকদের সংখ্যাও কমে গেছে। 

তামাবিল ইমিগ্রেশন অফিস সূত্র জানায়, শনিবার ৩০-৩৫ জন পর্যটক ডাউকি সীমান্ত দিয়ে ভারতে গেছেন। অন্যান্য সময় শুক্র ও শনিবার তিন শতাধিক পর্যটক এই সীমান্ত দিয়ে ভারতে যেতেন বলে ইমিগ্রেশনের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম


আপনার মন্তব্য

close