শিরোনাম
প্রকাশ : ১১ জুলাই, ২০১৯ ২০:০৪

মৃত্যুকূপেই মৃত্যু নিয়ে বসবাস!

রেজা মুজাম্মেল, চট্টগ্রাম:

মৃত্যুকূপেই মৃত্যু নিয়ে বসবাস!
ফাইল ছবি

চট্টগ্রাম নগরের লালখান বাজার সংলগ্ন পোড়া কলোনিতে বৃহস্পতিবার পাহাড়ে ধস হয়। গত তিনদিন আগেই অতি ঝুঁকিপূর্ণ এ পাহাড়ের পাদদেশ থেকে ৩৭টি পরিবারকে অন্যত্র সরিয়ে নেওয়া হয়। জেলা প্রশাসনের অভিযান দল অনেকটা জোর করে এসব পরিবারকে অন্যত্র সরিয়ে নেয়। অন্যথায় প্রাণহানির ঘটনা ঘটার শঙ্কা ছিল বলে জানা যায়।   

জানা যায়, জেলা প্রশাসনের চিহ্নিত ১৭টি অতি ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড়গুলোতে গত ৩ জুলাই থেকে উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়। ইতোমধ্যে ৯টি ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড়ে উচ্ছেদ পরিচালনা করে শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ এবং প্রায় দুইশত পরিবারকে আটটি আশ্রয়কেন্দ্রসহ অন্যান্য স্থানে স্থানান্তর করা হয়েছে।   

কাট্টলি সার্কেলের সহকারী কমিশনার (ভূমি) তৌহিদুল আলম বলেন, ‘পোড়া কলোনি পাহাড়ের পাদদেশ থেকে ঝুঁকিপূর্ণভাবে বসবাস করা ৩৭টি পরিবারকে কয়েকদিন আগে সরানো হয়েছিল। কিন্তু গতকালই সেই পাহাড় ধসে পড়ে। তবে আশার কথা, সেখানো কোনো প্রাণহানি হয়নি।’   

আগ্রাবাদ সার্কেলের সহকারী কমিশনার (ভূমি) শারমিন আখতার বলেন, ‘অতি ঝুঁকিপূর্ণ ১৭ পাহাড়ের পাদদেশে ধারাবাহিকভাবে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। আগামী ১৭ জুলাই পর্যন্ত অভিযান চলবে। কারণ এসব পাহাড়ে তারা মৃত্যুকূপে মৃত্যুঝুঁকি নিয়েই বাস করছে।’

বিডি প্রতিদিন/মজুমদার


আপনার মন্তব্য