শিরোনাম
প্রকাশ : ২২ জুন, ২০২১ ১৮:১২
প্রিন্ট করুন printer

নারায়ণগঞ্জে লকডাউন বাস্তবায়নে কঠোর প্রশাসন

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:

নারায়ণগঞ্জে লকডাউন বাস্তবায়নে কঠোর প্রশাসন
Google News

মহামারী করোনা ভাইরাসের ডেল্টা সংক্রামণ রোধে সদ্য ঘোষিত লকডাউন বাস্তাবয়নে কঠোর পদেক্ষেপ নিয়েছে নারায়ণগঞ্জ প্রশাসন। ঢাকাসহ সারাদেশের বিভিন্ন স্থান থেকে নারায়ণগঞ্জে প্রবেশ ও নারায়ণগঞ্জ থেকে বর্হিগমন ঠেকাতে জেলার ১৮ টি গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে বসানো হয়েছে জেলা প্রশাসনের ১৮ টি ভ্রাম্যমাণ আদালতের টিম। এছাড়া নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশের প্রায় ৩০ টি টিম ১০ টি বিশেষ পয়েন্টে ও ২০ টি সাধারণ পয়েন্টে কাজ করছে। মঙ্গলবার সকাল থেকে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সাইবোর্ড এলাকায় নারায়ণগঞ্জে প্রবেশ চেষ্টাকালে প্রায় সাত শতাধিক যানবাহনকে ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে। 

সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, সাইনবোর্ডের, সানারপাড় সিদ্ধিরগঞ্জ, ভুলতা, মেঘনা ঘাট, কাঁচপুর আড়াইহাজার মদনগঞ্জ সহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে জেলা প্রশাসনের মোবাইল টিম ও পুলিশের টিম কঠোর অবস্থান নিয়েছে। সেখানে ঢাকা থেকে ও বিভিন্ন জেলা থেকে আগত প্রাইভেটকার, মাইক্রোবাস ও গণপরিবহনে করে আসা যাত্রীদের লকডাউনে বের হওয়ার কারণ নির্ণয় করা হচ্ছে এবং তাদেরকে ফিরিয়ে দেয়া হচ্ছে। বিকাল পর্যন্ত প্রায় ৭ শতাধিক নারায়ণগঞ্জমুখী যানবাহন ফিরিয়ে দিয়েছেন লকডাউন বাস্তবায়নে জেলা প্রশাসনের দায়িত্বরত নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট। এছাড়া নারায়ণগঞ্জ শহরের ফতুল্লার পঞ্চবটি, পাগলা পোস্তগোলা,মুন্সীগঞ্জের মোক্তারপুর ও  আদমজী সড়কে বিভিন্ন পয়েন্টে বসানো হয়েছে পুলিশের ব্যারিকেড পোস্ট। সেখানে মানুষের চলাচলের কারণ জিজ্ঞসা করে বাড়ি ফিরিয়ে দেয়া হচ্ছে।

সাইনবোর্ড এলাকায় সকাল ৬টা থেকে অবস্থান নেয়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) গোলাম রেজা মাসুম প্রধান জানান, সরকারি বিধি মোতাবেক লকাডাউন অমান্যে কোন ছাড় দেয়া হবে না। দুপুর ২ টা পর্যন্ত প্রায় তিনশত যানবাহনকে নারায়ণগঞ্জে প্রবেশে বাধা দিয়ে ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে। তবে জরুরি পরিসেবার আওতাভুক্ত কিছু পরিবহন প্রবেশ ও বের হতে দেওয়া হয়েছে।

শহরের চাষাঢ়া এলাকায় দায়িত্বরত  নারায়ণগঞ্জ ট্রাফিক পুলিশের অ্যাডমিন কামরুল ইসলাম জানান, লকডাউন বাস্তবায়নে কঠোর রয়েছে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ। শহরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে পুলিশের চেক পোস্ট বসানো হয়েছে। সেগুলো ৩০ জুন পর্যন্ত কাজ করবে।

নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ জানান, ঢাকার বাইরে থেকে যেখান দিয়ে নারায়ণগঞ্জে প্রবেশ করা যায় বা বের হওয়া যায় এমন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে ১৮ টি মোবাইল কোর্ট বসানো হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল থেকে তারা কাজ করছে এবং নারায়ণগঞ্জে প্রবেশে যাচাই বাছাই করে যানবাহনকে ফিরিয়ে দেয়া হচ্ছে।

নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জায়েদুল আলম জানান, পুরো জেলায় মোট ৩০ টি পুলিশের মোবাইল টিম কাজ করছে। এর মধ্যে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ চট্টগ্রাম, ঢাকা-চট্রগ্রাম- সিলেট, রূপগঞ্জ এশিয়ান হাইওয়েতে গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে কোন রকম গণপরিবহন চলতে দেয়া হচ্ছে না । এর  জন্য আমরা কঠোর অবস্থানে রয়েছি। লকাডাউন অমান্যে কোন রকম ছাড় দেয়া হবে না। 


বিডি প্রতিদিন/হিমেল

এই বিভাগের আরও খবর