শিরোনাম
প্রকাশ : ১২ জুন, ২০১৯ ১৯:১২
আপডেট : ১২ জুন, ২০১৯ ১৯:৪৭

পাকিস্তানকে ৩০৮ রানের টার্গেট দিল অস্ট্রেলিয়া

অনলাইন ডেস্ক

পাকিস্তানকে ৩০৮ রানের টার্গেট দিল অস্ট্রেলিয়া

ডেভিড ওয়ার্নারের সেঞ্চুরি ও অ্যারণ ফিঞ্চের অর্ধশতকের ওপর ভর করে সবকয়টি উইকেট হারিয়ে পাকিস্তানের বিপক্ষে ৩০৭ রান করেছে অস্ট্রেলিয়া। ফলে জয়ের জন্য পাকিস্তানকে করতে হবে ৩০৮ রান। দুই ওপেনার ওয়ার্নার ও ফিঞ্চ দুর্দান্ত সূচনা এনে দিলেও মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় রান সাড়ে তিনশ'র কাছাকাছিও যায়নি। এক্ষেত্রে অজিদের আটকাতে সবচেয়ে বড় অবদান রেখেছেন পাকিস্তানি পেসার মোহাম্মদ আমির। পাকিস্তানের ঘোষিত প্রথম স্কোয়াডে বাইরে থাকা এই পেসারই কিনা এদিন একাই নিয়েছেন ৫ উইকেট।

বিশ্বকাপের ১৭তম ম্যাচে পাকিস্তানি বিরুদ্ধে দুই ওপেনার অ্যারন ফিঞ্চ ও ডেভিড ওয়ার্নারের অর্ধশতকের ওপর ভর করে বড় সংগ্রহের পথে অজিরা। ৮২ রান করে ফিঞ্চ ফিরলেও সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন ওয়ার্নার। এই প্রতিবেদন লেখার সময় ৩৬ ওভার শেষে ৩ উইকেট হারিয়ে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ  ২৩৫ রান।  

বুধবার টনটনে বৃষ্টি আবহ ও বাতায় থাকায় টস জিতে ফিল্ডিং বেছে নেন পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। যদিও এখনো বৃষ্টি নামেনি। তবে পেসাররা তার সিদ্ধান্তকে স্বার্থক করতে পারেননি। আমির -আফ্রিদিদের ব্যর্থ করে অস্ট্রেলিয়াকে উড়ন্ত সূচনা এনে দেন দুই ওপেনার অ্যারন ফিঞ্চ ও ডেভিড ওয়ার্নার। অবিচ্ছিন্ন ওপেনিং জুটিতে ১৪৬ রান এনে দেন তারা। ফিফটি তুলে সেঞ্চুরির পথে হাঁটছিলেন ফিঞ্চ। তবে তাতে বাদ সাধেন মোহাম্মদ আমির। দ্বিতীয় স্পেলে ফিরেই অজি অধিনায়ককে ফেরান তিনি। যদিও ফেরার আগে ৮৪ বলে ৬ চার ও ৪ ছক্কায় ৮২ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেন ফিঞ্চ।

দলপতি ফেরার পর ব্যাটিংয়ে আসেন সাবেক অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। তবে এ ম্যাচে তিনি ব্যর্থ। ১৩ বলে মাত্র ১০ রান করে মোহাম্মদ হাফিজের বলে ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে আফিস আলীর হাতে তালুবন্দি হন তিনি। এরপর ব্যাটিংয়ে প্রমোশন পেয়ে চারে ব্যাটিংয়ে নামেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। এসেই ঝড় তোলেন তিনি। তবে বেশিক্ষণ স্থায়ী হতে পারেননি। ১০ বলে ২০ রান করে শাহিন শাহ আফ্রিদির বলে বোল্ড হয়ে যান এই হার্ড হিটার ব্যাটসম্যান। তবে স্বভাব সুলভ ব্যাট চালিয়ে ১০২ বলে সেঞ্চুরি তুলে নেন ওয়ার্নার। ব্যক্তিগত ১০৭ এবং দলীয় ২৪২ রানে ওয়ার্নার ফেরার পরও অস্ট্রেলিয়া বড় সংগ্রহের পথে ছিল। কিন্তু পাকিস্তানি পেসাদের সম্মিলিত আক্রমণের মুখে পড়ে ৩০৭ রানে থামে অজিরা। 

এদন, পাকিস্তানের পক্ষে মোহাম্মদ আমির ৫ উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি শাহিন শাহ আফ্রিদি ২টি এবং হাফিজ, হাসান আলী ও ওয়াহাব রিয়াজ একটি করে উইকেট নেন।

বিডি-প্রতিদিন/১২ জুন, ২০১৯/মাহবুব


আপনার মন্তব্য