শিরোনাম
প্রকাশ : ৯ ডিসেম্বর, ২০১৯ ১৬:১৪

গরু লালন-পালনে অপরাধ প্রবণতা কমে : আরএসএস প্রধান

অনলাইন ডেস্ক

গরু লালন-পালনে অপরাধ প্রবণতা কমে : আরএসএস প্রধান
সংগৃহীত ছবি

ভারতের রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সঙ্ঘ (আরএসএস) প্রধান মোহন ভগবত বলেছেন, জেলে কয়েদিরা গরু লালন-পালন করলে তাদের মধ্যে অপরাধ প্রবণতা কমে। পুনেতে শনিবার 'গো-বিজ্ঞান সংশোধন সংস্থা'র আয়োজনে এক পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বক্তব্যকালে এ মন্তব্য করেন তিনি।

মোহন ভগবত বলেন, জেলখানায় যখন গো-শালা স্থাপন করা হয়েছিল এবং বন্দিরা গরু লালন-পালন শুরু করে, তখন কারা-কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, বন্দীদের মধ্যে তখন অপরাধমূলক মানসিকতা হ্রাস পায়। কারা কর্তৃপক্ষের অভিজ্ঞতা থেকে আমি এসব তথ্য বলছি।

তিনি আরও বলেন, গরু বিশ্বব্রহ্মাণ্ডের মা... এটি মাটি, প্রাণী, পাখি, মানুষকে লালন-পালন করে এবং রোগবালাই থেকেও রক্ষা করে। এছাড়া গরু মানব হৃদয়কে ফুলের মতো কোমল করে তোলে।

এছাড়া আরএসএস প্রধান বলেছেন, গরু সংরক্ষণের জন্য সমগ্র সমাজকে এক হওয়া উচিত এবং বৈজ্ঞানিক উপায়ে ভারতীয় জাতের গরুর গুরুত্ব জনগণকে বোঝাতে হবে।

এর আগে পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ দাবি করেছিলেন, গরুর দুধে সোনা থাকে। যা নিয়ে দেশটির রাজ্য-রাজনীতিতে তুমুল বিতর্ক তৈরি হয়।

এছাড়া লোকসভা নির্বাচনের সময় ভোপালের বিজেপি সাংসদ প্রজ্ঞা ঠাকুর বলেন, গরুর শরীরে হাত বোলালে রক্তচাপ কমে। এমনকি গোমূত্রতে তার ক্যানসারও সেরেছে বলে দাবি করেন তিনি। 

বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম


আপনার মন্তব্য

close