শিরোনাম
১৪ এপ্রিল, ২০২৩ ১৯:২৫

‘বাখমুতের কিছু এলাকা থেকে পিছু হটেছে ইউক্রেনীয় বাহিনী’

অনলাইন ডেস্ক

‘বাখমুতের কিছু এলাকা থেকে পিছু হটেছে ইউক্রেনীয় বাহিনী’

রাশিয়ার সেনাবাহিনী নতুন করে গোলাবর্ষণ বৃদ্ধি করায় বাখমুতের রণাঙ্গনের কিছু এলাকা থেকে পিছু হটেছে ইউক্রেন। শুক্রবার নিয়মিত গোয়েন্দা বুলেটিনে এই তথ্য জানিয়েছে যুক্তরাজ্য। 

ব্রিটিশ সামরিক গোয়েন্দা সংস্থার আপডেটে বলা হয়েছে, দোনেতস্ক অঞ্চলে বাখমুত শহরে রাশিয়া পুনরায় আক্রমণের তীব্রতা বৃদ্ধি করেছে। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ও রুশ ভাড়াটে বাহিনী ওয়াগনার গ্রুপের মধ্যে সহযোগিতার অগ্রগতি হওয়ার পর নতুন হামলা চালাচ্ছে তারা।

বিবৃতি অনুসারে, ইউক্রেনীয় বাহিনী রসদ ও সামরিক সরঞ্জাম পেতে সমস্যায় পড়েছে। কিন্তু যেসব এলাকা ছাড়তে তারা বাধ্য হয়েছে সেখানে সুশৃঙ্খলভাবে পিছু হটেছে।

বাখমুত দখলের রুশ আক্রমণের নেতৃত্বে রয়েছে ওয়াগনার গ্রুপ। বিগত কয়েক সপ্তাহ ধরে ভাড়াটে এই বাহিনীর প্রধান ইয়েভজেনি প্রিগোজিন দাবি করছিলেন, রুশ সেনাবাহিনী ও প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে তার যোদ্ধারা প্রয়োজনীয় সহযোগিতা পাচ্ছে না।

ব্রিটিশ গোয়েন্দা তথ্য বলছে, ইউক্রেন এখনও বাখমুতের পশ্চিমাঞ্চলীয় জেলাগুলোর নিয়ন্ত্রণ ধরে রেখেছে। কিন্তু গত ৪৮ ঘণ্টা ধরে তারা রুশ গোলাবর্ষণের শিকার হচ্ছে। ওয়াগনার গ্রুপের ইউনিটগুলো বাখমুতের কেন্দ্রের দিকে অগ্রসর হতে মনোনিবেশ করেছে। একই সময়ে রুশ প্যারাট্রুপাররা শহরের আশেপাশে তাদের সহযোগিতা করছে।

যুদ্ধ শুরুর আগে বাখমুতে প্রায় ৭০ হাজার মানুষের বসবাস ছিল। পুরো শীতকালজুড়ে রাশিয়ার আক্রমণের প্রধান ছিল এই শহর দখল করা। কিন্তু এখনও তা পুরোপুরি দখল করতে পারেনি মস্কো। শহরটি দখল করতে পারলে গত আট মাসের মধ্যে রাশিয়ার প্রথম উল্লেখযোগ্য বিজয়। মস্কো বলে আসছে, এটি ইউক্রেনের পূর্ব দোনবাস অঞ্চলে আরও বেশি এলাকা দখলের একটি পথ খুলে দেবে। দোনবাস অঞ্চল দখল করা যুদ্ধে মস্কোর প্রধান লক্ষ্য। সূত্র: আল জাজিরা

বিডিপ্রতিদিন/কবিরুল

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর