শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১ এপ্রিল, ২০২০ ০০:১৮

সংক্ষেপে

ইরাকে আবার সেনা মোতায়েন যুক্তরাষ্ট্রের

ইরাকের আইন আল-আসাদ সামরিক ঘাঁটিতে নতুন করে মার্কিন সরকার সেনা মোতায়েন করছে। ইরাকের পপুলার মোবিলাইজেশন ইউনিট বা হাশদ আশ-শাবির বিরুদ্ধে মার্কিন সেনারা নতুন করে সামরিক আগ্রাসন চালানোর পরিকল্পনা করছে বলে খবর বের হওয়ার পর এই তথ্য প্রকাশ হলো। নিউইয়র্ক টাইমস গত সপ্তাহে জানিয়েছে, মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় পেন্টাগন সেনা কমান্ডারদের পপুলার মোবিলাইজেশন ইউনিটের বিরুদ্ধে অভিযান জোরদার করার নির্দেশ দিয়েছে। মার্কিন সেনা কর্মকর্তারা বলছেন, প্রকৃতপক্ষে ইরাক থেকে সেনা প্রত্যাহার করা হয়নি বরং বিভিন্ন জায়গা থেকে সেনা আইন আল-আসাদ ও কায়িম ঘাঁটিতে পুনঃমোতায়েন করা হয়েছে।

 

চীনে দাবানলে ১৮ দমকল কর্মীসহ নিহত

চীনে করোনা আতঙ্ক এখনো কাটেনি। এর মধ্যে দেশটির সিচুয়ান প্রদেশে দাবানল ছড়িয়ে পড়েছে। আগুন নেভাতে গিয়ে ১৮ দমকল কর্মী ও তাদের এক পথপ্রদর্শক নিহত হয়েছেন। গতকাল ভোরে তাদের মৃত্যু হয় বলে চীনের রাষ্ট্রায়ত্ত বার্তা সংস্থা সিনহুয়ার বরাত দিয়ে জানিয়েছে বিবিসি। দমকল কর্মীদের ওই দলটি হঠাৎ বাতাসের দিক পরিবর্তনের কারণে আটকা পড়ে যায় বলে সিনহুয়ার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।  দাবানল সিচুয়ানের লিয়াংশান বিভাগের ১ হাজার হেক্টরজুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে ও স্থানীয়দের উদ্ধার করতে ওই এলাকায় ২ হাজার দমকল ও উদ্ধার কর্মী পাঠানো হয়েছে। তারা এ পর্যন্ত ১২০০ লোককে সরিয়ে নিয়েছেন।

 

করোনায় প্রথম মার্কিন সেনাসদস্যের মৃত্যু

বিশ্বব্যাপী মহামারী রূপ নেওয়া করোনাভাইরাসে আক্রান্ত মার্কিন এক সেনাসদস্যের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগন এ তথ্য জানিয়েছে। করোনায় দেশটিতে এটিই প্রথম কোনো সেনাসদস্যের মৃত্যু ঘটনা। মৃত ওই সেনা ছিলেন নিউজার্সি আর্মি ন্যাশনাল গার্ডসম্যানের সদস্য। নিউইয়র্ক পোস্টের খবরে বলা হয়েছে, কভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হয়ে গত ২১ মার্চ তিনি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। শনিবার তার মৃত্যু হয়। দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী মার্ক এসপার এক বিবৃতিতে বলেন, ‘আজকের মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের জন্য একটি বেদনাদায়ক দিন। করোনায় প্রথমবারের মতো আজ আমরা কোনো মার্কিন সেনাসদস্যকে হারালাম।’ তিনি বলেন, এটি আমাদের সামরিক বাহিনীর জন্য বড় ক্ষতি। নিহতদের পরিবার, বন্ধু ও স্বজনদের প্রতি আমরা  শোক ও সহানুভূতি জানাচ্ছি।


আপনার মন্তব্য