শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ৩১ মার্চ, ২০২০ ২৩:৪৫

গাজীপুরে একই ঘরে তিন লাশ

গাজীপুর প্রতিনিধি

গাজীপুরে একই ঘরে তিন লাশ

গাজীপুরে একই ঘর থেকে স্বামী-স্ত্রী ও শিশুকন্যার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহতরা হলেন- মোশারফ হোসেন (২৮), তার স্ত্রী হোসনে আরা (২২) এবং ওই দম্পত্তির দুই মাসের মেয়ে মোহিনী। মোশারফের বাড়ি রংপুরের পীরগঞ্জ থানার ফকিরতরি এলাকায়। হোসনে আরার বাড়ি গাজীপুরের পানিশাইল এলাকায়। মোশারফ পরিবার নিয়ে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কাশিমপুর থানার পানিশাইল এলাকার একটি বাসায় ভাড়া থাকতেন। মোশারফ রাজমিস্ত্রির সহকারীর কাজ করতেন। গতকাল সকালে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কাশিমপুর থানাধীন পানিশাইল এলাকা থেকে লাশ তিনটি উদ্ধার করে পুলিশ। স্ত্রী-সন্তানকে হত্যার পর স্বামী আত্মহত্যা করেছেন বলে পুলিশের ধারণা।

বাড়ির তত্ত্বাবধায়ক কবির হোসেন বলেন, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের পানিশাইল এলাকার সোনালি পল্লীর সাদেক আলীর বাড়ির একটি বাসা ভাড়া করে পরিবার নিয়ে থাকতেন মোশারফ। অন্য দিনের মতো সোমবার রাতে তারা ঘুমিয়ে পড়েন। গতকাল সকালে তাদের ঘরের দরজা খুলতে দেরি হচ্ছিল। এ অবস্থায় বাসার অন্য লোকজন তাদের ডাকাডাকি করেন। কিন্তু ওই ঘরের ভিতর থেকে তাদের কোনো সাড়া পায়নি তারা। তা ছাড়া তাদের ঘরের ভিতর থেকে বিষের গন্ধ বের হচ্ছিল। স্থানীয় লোকজন বিষয়টি ফোন করে থানা পুলিশকে অবহিত করে। খবর পেয়ে কাশিমপুর থানা পুলিশ সকাল ১০টার দিকে ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘরের দরজা ভেঙে মোশারফের ঝুলন্ত এবং বিছানা থেকে তার স্ত্রী ও মেয়ের লাশ উদ্ধার করে। গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের কাশিমপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আকবর আলী খান জানান, ঘরের চালের আড়ার সঙ্গে গলায় কাপড় প্যাঁচানো মোশারফ হোসেনের ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায়। বিছানায় পড়ে ছিল তার স্ত্রী হোসনে আরা ও মেয়ে মোহিনীর লাশ। ৫ বছর আগে প্রেম করে মোশারফ ও হোসনে আরা বিয়ে করেন। পারিবারিক কোনো কারণে মোশারফ কৌশলে তার স্ত্রী ও মেয়েকে বিষ খাইয়ে হত্যা করে নিজে আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন ধারণা করা হচ্ছে। পুরো বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে বিষের বোতল, বিষমিশ্রিত দুধের ফিডার ও জুসের বোতল উদ্ধার করেছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট পাওয়ার পর মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে।


আপনার মন্তব্য