শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ২৩ মে, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ মে, ২০২০ ০০:১৫

পলাশবাড়ীতে ট্রাক দুর্ঘটনা

নিহত ১৩ জনের ১১ জনই রংপুরের

নিজস্ব প্রতিবেদক, রংপুর

ওরা সবাই প্রিয়জনের সঙ্গে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে রডবোঝাই ট্রাকে করে বাড়ি ফিরছিলেন। পথই এদের নিয়ে যায় চিরস্থায়ী বাড়িতে।  গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে রডবোঝাই ট্রাক উল্টে নিহত ১৩ জনের মধ্যে ১১ জনই রংপুরের বাসিন্দা। এর মধ্যে পীরগঞ্জ উপজেলার ১০ জন ও কাউনিয়া উপজেলার একজন রয়েছেন।

নিহতদের কেউ গার্মেন্টকর্মী অথবা রিকশাচালক। তাদের কারও সঙ্গে প্রিয় সন্তানও ছিল। গ্রামের বাড়িতে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে রডবোঝাই ট্রাকে করে বাড়ি ফিরছিলেন তারা। কিন্তু ট্রাক উল্টে পথেই তারা প্রাণ হারান। এসব মানুষের মৃত্যুতে পীরগঞ্জের অনেক স্থানে চলছে শোকের মাতম। পলাশবাড়ী ও পীরগঞ্জ থানা সূত্রে জানা গেছে, বুধবার ঝড়ের রাতের যে কোনো সময় দুর্ঘটনাটি ঘটে থাকতে পারে। এ সময় ঝড়ো হাওয়ার সঙ্গে তুমুল বাতাসের ধাক্কায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি রডবোঝাই ট্রাক রাস্তার পশ্চিম পাশের খাদে উল্টে যায়। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে পুলিশ দুর্ঘটনাস্থলে এসে শুধু ট্রাকটি উদ্ধার করে। এরপর দুপুর ১২টার দিকে পুলিশ ট্রাকটির ওই স্থানে পানির নিচ থেকে ৩ শিশুসহ ১৩ জনের লাশ উদ্ধার করে। এই ১৩ জনের ১১ জনই রংপুরের। তারা সবাই নিম্নআয়ের মানুষ। যাদের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে তারা হলেন রংপুরের পীরগঞ্জের ডোরাকান্দির মৃত আবদুস সামাদের ছেলে শামসুল আলম (৬০), মো. সুমন মিয়ার ছেলে সোয়াইব (৭), মৃত এমদাদুল হকের ছেলে হান্নান (১৮), আবদুুর রাজ্জাকের পুত্র ইমরান হোসেন (২২), আনারুল ইসলামের পুত্র মনিরুল ইসলাম (২০), মোকবুল হোসেনের পুত্র এরশাদ (৩৫), এরশাদের পুত্র ওবায়দুল হক (৮), ইছা খানের পুত্র আল আমিন (২৭), এরশাদুল ওরফে বেলার পুত্র আকাশ (১৫), ফুল মিয়ার পুত্র ইসহাক খান (১৪) রংপুরের কাউনিয়া উপজেলার আবদুুল মতিন মিয়ার পুত্র শরীফুল ইসলাম (২৫), গাইবান্ধার পলাশবাড়ীর খলিলুর রহমানের পুত্র গার্মেন্টকর্মী মোতালিব (২৩), কুড়িগ্রামের মহিউদ্দিনের পুত্র মিজানুর রহমান (২৭)। পীরগঞ্জ উপজেলার শানেরহাট ইউপি চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান জানান, তার ইউনিয়নেই ৫ জন মারা গেছেন। গতকাল বাদ জুমা একসঙ্গে সবার জানাজা শেষে লাশ দাফন করা হয়েছে। পলাশবাড়ী থানার ওসি মাসুদুর রহমান জানান, নিহতরা সবাই ট্রাকে চড়ে আসছিলেন। এ ঘটনায় ৩ সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। ডিসি এসপি ঘটনাস্থাল পরিদর্শন করেছেন। হাইওয়ে থানা বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা করেছে। পীরগঞ্জ থানার ওসি  সরেষ চন্দ্র জানান, নিহতদের মধ্যে ১০ জনই পীরগঞ্জের। তাদের সবার লাশ দাফন করা হয়েছে। এ বিষয়ে গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক উচ্চ পর্যায়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর