শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২৬ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৫ মে, ২০২১ ২৩:৪৬

বাংলাদেশিদের হজ এ বছরও অনিশ্চিত

আটকে পড়া প্রবাসীদের বাড়ছে ইকামার মেয়াদ

শফিকুল ইসলাম সোহাগ

Google News

চলতি বছর সৌদি আরবের বাইরে থেকে সীমিত সংখ্যক হজযাত্রীকে হজ পালনের অনুমতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সৌদি সরকার। করোনার কারণে গত বছরও সৌদি আরবের বাইরে থেকে কাউকে হজ পালনের অনুমতি দেওয়া হয়নি। এ বছর দুই ডোজ করোনার টিকা দেওয়ার শর্তে সৌদি সরকার বিদেশিদের হজে অংশগ্রহণের অনুমতি দিয়েছে। ১৫ হাজার সৌদি নাগরিক ও ৪৫ হাজার বিদেশি মুসল্লি এবার সীমিত আকারে হজে অংশ নিতে পারবেন। তবে বাংলাদেশিরা এই সুযোগ পাবেন কি না তা এখনো নিশ্চিত নয় ধর্ম মন্ত্রণালয়। এ ব্যাপারে সৌদি হজ মন্ত্রণালয় থেকে এখনো কোনো বার্তা পায়নি বাংলাদেশ। এদিকে ভারতে করোনা পরিস্থিতির অবনতি হওয়ায় বাংলাদেশের মুসল্লিরা হজ পালনের আদৌ অনুমতি পাবেন কি না তা  নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। তবে সৌদি সরকারের অনমুতি মিললে বাংলাদেশ থেকে কতসংখ্যক হজযাত্রী সৌদি যেতে পারবেন আর অগ্রাধিকার ভিত্তিতে কারা যাবেন এ নিয়ে সংশ্লিষ্ট সব মহলে রয়েছে অনিশ্চয়তা। জানা যায়, কভিড-১৯ মহামারীর পর প্রথমবারের মতো এ বছর বিশ্বের ৬০ হাজার লোক হজ পালনের সুযোগ পাবেন বলে জানিয়েছে সৌদি সরকার। আগামী জুলাই মাসে (৯ জিলহজ) অনুষ্ঠিতব্য হজে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ১৮-৬০ বছর বয়সী নাগরিকরা অংশগ্রহণের সুযোগ পাবেন। বিদেশি হজযাত্রীদের টিকার প্রথম ডোজ অবশ্য ঈদুল ফিতরের আগে নিতে হবে। এবং দ্বিতীয় ডোজ সৌদিতে পৌঁছার ১৪ দিন আগে নিতে হবে। এ বছর ৬১ হাজার মুসল্লি বাংলাদেশ থেকে হজ পালনের জন্য টাকা জমা দিয়ে চূড়ান্ত নিবন্ধন করলেও পরে টাকা ফেরত নেন ৬ হাজার জন। এরমধ্যে সরকারি নিবন্ধিত রয়েছে ৭ থেকে ৮ হাজার।

আটকে পড়া সৌদি প্রবাসীদের বাড়ছে ইকামার মেয়াদ : করোনাভাইরাস মহামারীতে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার কারণে বিভিন্ন দেশে আটকে পড়া প্রবাসীদের ইকামার মেয়াদ বাড়াচ্ছে সৌদি আরব। এর সঙ্গে ভিসার মেয়াদও আগামী ২ জুন পর্যন্ত বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে সৌদি সরকার। সৌদি প্রেস এজেন্সির বরাত দিয়ে মঙ্গলবার সৌদি গেজেট এ খবর জানিয়েছে। সৌদি গেজেট বলেছে, বাদশা সালমানের নির্দেশনায় অর্থ মন্ত্রণালয় বিনা মূল্যে ইকামা ও ভিসার মেয়াদ বাড়ানোর বিষয়টি অনুমোদন করেছে। দেশের নাগরিক ও বসবাসকারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত এবং তাদের অর্থনৈতিক ক্ষতি প্রশমনে ধারাবাহিক প্রচেষ্টার অংশ হিসেবে এটা করা হয়েছে।

সৌদি প্রেস এজেন্সির তথ্যমতে, সৌদি আরবের জাতীয় তথ্য কেন্দ্রের সঙ্গে সমন্বয়ের মাধ্যমে স্বয়ংক্রিয়ভাবে ইকামা ও ভিসার মেয়াদ বাড়ানোর কাজটি করা হবে বলে পাসপোর্ট অধিদফতর জানিয়েছে। করোনাভাইরাস সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ার পর বিভিন্ন দেশের ওপর ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে সৌদি আরব। এতে নিজ নিজ দেশে গিয়ে আটকা পড়েছেন অনেক প্রবাসী। তাদের জন্য বিনা মূল্যে ইকামা ও ভিসার মেয়াদ বাড়ানোর এ ঘোষণা দিল দেশটি।

এই বিভাগের আরও খবর