শিরোনাম
প্রকাশ : ১ জানুয়ারি, ২০২১ ১৬:৩৩
প্রিন্ট করুন printer

বিএনপি প্রতি বছরই শক্তি সঞ্চয় করছে: মির্জা ফখরুল

অনলাইন ডেস্ক

বিএনপি প্রতি বছরই শক্তি সঞ্চয় করছে: মির্জা ফখরুল
ফাইল ছবি

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‌‘প্রতি বছরই বিএনপি শক্তি সঞ্চয় করছে। নতুন বছরেই গণতন্ত্র ফিরে পাবে দেশের মানুষ। জগদ্দল পাথরের মতো চেপে বসা সরকারকে গণঅভ্যুত্থানে পরাজিত করা হবে।

আজ শুক্রবার জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে রাজধানীর শের-ই বাংলানগরে জিয়ার কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে তিনি এসব কথা বলেন। 

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘বাংলাদেশের মানুষ আওয়ামী লীগ সরকারের দখলদারী মেনে নেবে না। নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নিরপেক্ষ নির্বাচন দিতে বাধ্য করতে হবে। গণতান্ত্রিক ব্যবস্থাকে প্রতিষ্ঠিত করতে হবে। সব রাজনৈতিক দলকে ঐক্যবদ্ধ করে, গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনার আন্দোলনে যাবে বিএনপি। সাংগঠনিকভাবে বিএনপি এখন আরও শক্তিশালী।’

তিনি বলেন, ‘রাজনৈতিক দলগুলোর ঐক্যের মধ্য দিয়ে ফ্যাসিবাদি সরকারকে পরাজিত করা সম্ভব।’

বিডি প্রতিদিন/জুনাইদ আহমেদ

 
 


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৪:২২
প্রিন্ট করুন printer

নিজে থেকে ফোন করে কখনওই মেয়ের খোঁজখবর নিত না তামিমা: রাকিবের মা

অনলাইন ডেস্ক

নিজে থেকে ফোন করে কখনওই মেয়ের খোঁজখবর নিত না তামিমা: রাকিবের মা

বর্তমানে ক্রিকেটার নাসির ও বিমানবালা তামিমা সুলতানার বিয়ে চলছে তোলপাড়। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চলছে নানা ধরনের আলোচনা-সমালোচনা। অভিযোগ উঠেছে, স্বামী রাকিব হাসানকে তালাক না দিয়েই নাসিরকে বিয়ে করেছেন তামিমা।

এদিকে বিষয়টি নিয়ে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন রাকিবের মা সালমা সুলতানা। তিনি বলেন, ১০-১২ বছর আগে রাকিবের সঙ্গে প্রেম করে বিয়ে করায় আমরা প্রথমে তামিমাকে মেনে নেইনি।

রাকিবের বাড়ি ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলার ভৈরবপাশা ইউনিয়নে। নাসির-তামমিরা বিয়ের বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেই জানতে পারেন তিনি। এরপর তিনি রাকিব অভিযোগ করেন, বিবাহবিচ্ছেদ না করেই নাসিরকে বিয়ে করেছেন তামিমা।

এদিকে, রাকিব-তামিমার মেয়ে রাফিয়া হাসান তুবা টেলিভিশনে মায়ের বিয়ে দেখেছে গণমাধ্যমে। এরপর দাদির গলা জড়িয়ে ধরে অঝোরে কেঁদেছে।

তামিমার এই বিয়েতে অবাক হয়েছেন রাকিবের মা (তুবার দাদি)। তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, রাকিবের বউ থাকা অবস্থায় তাম্মি (তামিমা) যে আবার বিয়ে বসবে সেটা আমাদের কল্পনাতেও ছিল না। তুবাই প্রথম টেলিভিশনে দেখে আমার কাছে এসে গলা জড়িয়ে ধরে কান্নায় ভেঙে পড়ে আর বলে যে মা আবার বিয়ে করেছে।

তিনি বলেন, প্রথমে আমরা তাকে মেনে নেইনি। কিন্তু তুবার জন্ম হলে সম্পর্ক স্বাভাবিক হয়। শুরু থেকেই তাম্মির আচরণ কিংবা স্বভাব কোনওটাই ভালো ছিল না। তবুও আমরা ছেলে আর নাতনির মুখ চেয়ে কখনও কিছু বলিনি।

তুবার দাদি বলেন, গত ২৬ আগস্ট ছিল তুবার জন্মদিন। সেদিন আমরা কেক কেটেছি, তুবা অনুষ্ঠানে নাচ করেছে। ভিডিও কলে তাম্মিকে সব দেখিয়েছি আমরা। সেও আনন্দ পাওয়ার অনেক ভান করেছে সেদিন। কিন্তু তখনও ঘুর্ণাক্ষরেও বুঝতে পারিনি যে সে এরকম একটা কিছু করবে। তাম্মি নিজে থেকে ফোন করে কখনওই তুবার কোনও খোঁজখবর নিত না। তুবা মাকে ফোন করে কথা বলতে চাইলেও নানা ব্যস্ততার অজুহাত দেখিয়ে লাইন কেটে দিতেন তামিমা।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৪:১৬
আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৪:২৭
প্রিন্ট করুন printer

জাতিসংঘ মহাসচিবকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ

অনলাইন ডেস্ক

জাতিসংঘ মহাসচিবকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ
অ্যান্তনিও গুতেরেস

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তনিও গুতেরেসকে ঢাকা সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। জাতির পিতার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর উৎসবে অংশগ্রহণ করতে জাতিসংঘ মহাসচিবকে আমন্ত্রণ জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী। 

যুক্তরাষ্ট্র সফররত পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে জাতিসংঘ মহাসচিবের অনলাইন বৈঠকের সময় তিনি এ আমন্ত্রণ জানান। এসময় করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় বাংলাদেশ সরকারের প্রশংসা করেন জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস। শুক্রবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) জাতিসংঘের বাংলাদেশ স্থায়ী অফিস থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, বাংলাদেশের আর্থসামাজিক পরিস্থিতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্ব বিশেষ করে বাংলাদেশের জনগণের প্রতি তার সুদৃঢ় প্রতিশ্রুতির উচ্চকিত প্রশংসা করেন জাতিসংঘ মহাসচিব। আলোচনাকালে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও জাতিসংঘ মহাসচিব উভয়েই সম্মত হন যে করোনার ভ্যাকসিনকে বৈশ্বিক সম্পদ হিসেবে বিবেচিত করা উচিত।

একই সময় রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেয়ায় বাংলাদেশের উদারতা অতুলনীয় বলে উল্লেখ করেন জাতিসংঘ মহাসচিব। বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে তিনি জানান, রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন আমাদের যৌথ উদ্দেশ্য। এসময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ সময় ভাসানচরের রোহিঙ্গাদের মানবিক সাহায্যে জাতিসংঘকে এগিয়ে আসার অনুরোধ জানান।


বিডি-প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ সিফাত


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১০:৪২
আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৪:০৬
প্রিন্ট করুন printer

চ্যানেল টোয়েন্টিফোরের প্রতিবেদন

নাসির-তামিমার বিয়ের প্রসঙ্গ উঠল হাইকোর্টে

অনলাইন ডেস্ক

নাসির-তামিমার বিয়ের প্রসঙ্গ উঠল হাইকোর্টে
নাসির হোসেন ও তামিমা সুলতানা। ফাইল ছবি

স্বামীর প্ররোচনায় প্রেমিকের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও পর্নোগ্রাফির মামলা করেন এক নারী। ওই মামলায় হাইকোর্টে জামিন নিতে গেলে অভিযুক্তের পক্ষে দাঁড়ান কথিত ভুক্তভোগী। এসময় ক্রিকেটার নাসিরের বিয়ের প্রসঙ্গ উঠে আসে হাইকোর্টে। আদালত বলেন, নৈতিক ও সামাজিক অবক্ষয়ের কারণে সমাজে বাড়ছে এমন ঘটনা। 

ক্রিকেটার নাসির হোসেনের বিয়ে নিয়ে যখন আলোচনা সমালোচনা পুরো দেশজুড়েই। ঠিক তখনই হাইকোর্টে একই ধরণের এক বিয়েতে জামিন চাইতে এসেছেন এক ভুক্তভোগী। 

রাজধানীর দক্ষিণখান থানার পারভেজ ইসলাম সকালে হাইকোর্টে আসেন জামিন চাইতে। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি খাদিজা আক্তার নামে এক নারীকে ধর্ষণ করেছেন। অভিযোগ এখানেই শেষ নয়, আরেকটি মামলা আছে পর্ণোগ্রাফি আইনে। 

নাটকীয়তার শুরু হয় যখন জামিন শুনানিতে হাজির হন মামলার বাদী খাদিজা আক্তার। তিনি জানান, মামলা দিতে বাধ্য করেছেন তার স্বামী। এরই মধ্যে সেই স্বামীকে দিয়েছেন তালাকও। শিগগিরই বিয়ে করবেন পারভেজ ও খাদিজা।

ক্ষুব্ধ হয়ে হাইকোর্ট দু’জনকে প্রায় পাঁচ ঘণ্টা দাঁড় করিয়ে রাখেন। বিকাল সাড়ে তিনটার পর শুরু হয় জামিন শুনানি। এসময় আদালত বলেন, এক ক্রিকেটারের বিয়ে নিয়েই তোলপাড় দেশ, এর মধ্যেই আরেক ঝামেলা এসে পড়ল হাইকোর্টের ঘাড়ে। আদালতের মন্তব্য, সামাজিক ও নৈতিক অবক্ষয়ের কারণে এ ধরনের ঘটনা বাড়ছে।

সব শুনে তাদের দু’জকেই সতর্ক করলেন আদালত, জামিন দেন পারভেজ ইসলামকে। 

জামিনের পর এক সাথেই আদালত থেকে বেরিয়ে যান পারভেজ-খাদিজা। জানান, প্রথম স্বামীকে তালাক দেওয়ার ৯০ দিন পার হলেই সারবেন বিয়ের কাজ।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০৮:৩৫
আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০৯:৩০
প্রিন্ট করুন printer

সিলেটে দুই বাসের সংঘর্ষে নিহত ৭

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট

সিলেটে দুই বাসের সংঘর্ষে নিহত ৭

সিলেট-ঢাকা মহাসড়কের দক্ষিণ সুরমার রশিদপুরে লন্ডন এক্সপ্রেস ও এনা পরিবহনের মুখোমুখি সংঘর্ষে অন্তত: ৭ জন নিহত হয়েছেন। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও অর্ধশতাধিক লোক। 

শুক্রবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে ভয়াবহ দুর্ঘটনাটি ঘটে।

দুর্ঘটনা কবলিত দুটি বাস হচ্ছে- ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা লন্ডন এক্সপ্রেস (ঢাকা মেট্রো-ব ১৫-৩১৭৬) ও সিলেট থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়া এনা পরিবহন (ঢাকা মেট্রো ব ১৪-৭৩১১)।

এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত (সকাল সাড়ে ৯টা) দক্ষিণ সুরমা থানার একদল পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম ঘটনাস্থলে উদ্ধার কাজ চালাচ্ছে। তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের নাম-ঠিকানা জানা যায়নি।

বিডি-প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ২২:২৩
প্রিন্ট করুন printer

পিকে হালদারের ৫৯ একর জমি ক্রোকের আদেশ

অনলাইন ডেস্ক

পিকে হালদারের ৫৯ একর জমি ক্রোকের আদেশ
পিকে হালদার

এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রশান্ত কুমার হালদারের (পিকে হালদার) ৫৯ একর জমি ক্রোকের আদেশ দিয়েছেন আদালত। 

ঢাকা মহানগর সিনিয়র স্পেশাল জজ কেএম ইমরুল কায়েশ আজ এ আদেশ দেন।

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আইনজীবী মাহমুদ হোসেন জাহাঙ্গীর বলেন, মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তদন্তকারী কর্মকর্তা আসামি পিকে হালদার ও তার স্বার্থ-সংশ্লিষ্টদের মোট ৫৯ একর জমি ক্রোকের আবেদন করেন। শুনানি শেষে আদালত আসামির ওই জমি ক্রোকের আদেশ দেন।

এ বছরের ৮ জানুয়ারি পিকে হালদারের বিরুদ্ধে রেড নোটিশ জারি করে ইন্টারপোল। এরও আগে ৫ জানুয়ারি পিকে হাদারের মা লীলাবতী হালদারসহ ২৫ ব্যক্তির দেশ ত্যাগে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছেন হাইকোর্ট। গত বছরের ২ ডিসেম্বর পিকে হালদারকে ইন্টারপোলের মাধ্যমে গ্রেফতারের জন্য পরোয়ানা জারির আদেশ দেন ঢাকা মহানগর সিনিয়র স্পেশাল জজ। 

পিকে হালদার পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আইএলএফএসএলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ছিলেন। গ্রাহকদের অভিযোগের মুখে বছরের শুরুতেই পিকে হালদার বিদেশ পালান। এরপর ৮ জানুয়ারি ২৭৪ কোটি ৯১ লাখ ৫৫ হাজার ২৫৫ টাকার অবৈধ সম্পদের অভিযোগে তার বিরুদ্ধে মামলা করে দুদক। এ মামলায় আরও দুই দফায় পিকে হালদারের স্থাবর-অস্থাবর সম্পদ ক্রোক ও ফ্রিজের আদেশ দেন আদালত।

আর্থিক খাত থেকে আত্মীয়-স্বজন চক্রের মাধ্যমে অন্তত ১০ হাজার কোটি টাকা সরিয়ে নেয়ার কারিগর পিকে হালদারের বিরুদ্ধে এখন পর্যন্ত ৪০০ কোটি টাকা বিদেশে পাচারের অফিশিয়াল তথ্য পাওয়া গেছে। দুদক ছাড়াও বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক গোয়েন্দা বিভাগ পিকে হালদার ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে অনুসন্ধান করছে। এছাড়া দুদকের ক্যাসিনো দুর্নীতির মামলায় চার্জশিট তালিকায় লিজিং কোম্পানি ও আর্থিক খাত থেকে কয়েক হাজার কোটি টাকা পাচারে জড়িত পিকে হালদারের নামও রয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/আরাফাত


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর