শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১৬ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৬ জানুয়ারি, ২০১৯ ০১:৫৫

পচা-বাসি খাবার বিক্রির দায়ে ৯ জনের সাজা

ফুটপাথ দোকানিদের জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক

পচা ও বাসি খাবার বিক্রির দায়ে গতকাল রাজধানীতে ৯ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দিয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় একটি হোটেল সিলগালাসহ মোট ৪ লাখ ৪ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এরমধ্যে গুলিস্তান বঙ্গবন্ধু এভিনিউর হোটেল সোহেলের মালিক সোহেলকে তিন দিনের, এরোমা স্নাকসের ম্যানেজার খালেদ মনসুরকে পাঁচ দিনের, ডেকো রেস্টুরেন্টের আবদুল লতিফকে তিন দিনের, মায়ের দোয়া হোটেলের ম্যানেজার সাইফুল ইসলামকে তিন দিনের, রমনা হোটেল ক্যান্টিনের ম্যানেজার সাইফুল ইসলামকে সাত দিনের, ফকিরাপুল এলাকার আল ইমাম হোটেলের ম্যানেজার আবদুল জলিলকে তিন দিনের, নবাবপুর এলাকার আদি মরণচাঁদ মিষ্টান্ন ভান্ডারের ম্যানেজার মিজানুর রহমান ও মোকাম্মেল হক প্রিন্সকে ১৫ দিন করে এবং যাত্রাবাড়ী এলাকার নান্না রেস্তোরাঁর ম্যানেজার কবীর হোসেনকে পাঁচ দিনের কারাদ  দেওয়া হয়। ফকিরাপুলে ভেজালবিরোধী অভিযান চলাকালে হোটেল বন্ধ করে পালিয়ে যাওয়ায় মিতালী রেস্টুরেন্টটি সিলগালা করা হয়েছে। ডিএসসিসি সূত্র জানায়, অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাবার পরিবেশন করায় গুলিস্তানের রাজধানী হোটেলকে ২০ হাজার, পূর্ণিমা স্নাকসকে ৫০ হাজার, খাবার দাবার পিঠাঘরকে ১৫ হাজার, হাজী বিরানিকে ২৫ হাজার, ফকিরাপুলের এশিয়া গার্ডেন রেস্টুরেন্টকে ৪০ হাজার, পেনাং রেস্টুরেন্টকে এক লাখ, পেনং থাই অ্যান্ড চাইনিজ রেস্তোরাঁকে ২৫ হাজার ও নবাবপুরের গোলাপশাহ বেকারিকে এক লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। এ ছাড়া যাত্রাবাড়ীতে ফুটপাথ দখল করে ব্যবসা করায় ফল বিক্রেতা ইলিয়াস, চান মিয়া ও সাদ্দাম হোসেনকে ৫ হাজার টাকা করে, কসমেটিক্স সামগ্রী বিক্রেতা শফিকে ৪ হাজার টাকা এবং নিউ সুপার নান্না রেস্টুরেন্ট ও আল ইসলাম বিরানি হাউসকে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়।

মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৬৪ : রাজধানীতে মাদকবিরোধী বিশেষ অভিযানে মাদক সেবন ও বিক্রির অভিযোগে ৬৪ জনকে গ্রেফতার করেছে ডিএমপি ও র‌্যাব।  ডিএমপির ডিসি (মিডিয়া) মো. মাসুদুর রহমান জানান, সোমবার সকাল ৬টা থেকে গতকাল সকাল ৬টা পর্যন্ত মাদকবিরোধী অভিযানে ৬১ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

অভিযানে ১ হাজার ৪২ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ৩৪৮ গ্রাম হেরোইন, ২৮০ গ্রাম গাঁজা, ৪০৯ বোতল ফেনসিডিল ও ৩৭ ক্যান বিয়ার উদ্ধার করা হয়। মাদক আইনে তাদের বিরুদ্ধে ৫৮টি মামলা করা হয়েছে।

এদিকে, র‌্যাব-৪ এর এএসপি সাজেদুল ইসলাম সজল জানান, সোমবার রাতে মানিকগঞ্জের সিংগাইর থানার চর আটিপাড়া থেকে তিন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করা হয়। তারা হলেন- সাইফুল ইসলাম ওরফে ফারুক, ওমর শেখ ও হালিমা বেগম। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৪০০ বোতল ফেনসিডিল এবং মাদক বহনে ব্যবহৃত একটি প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়েছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর