Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৩ আগস্ট, ২০১৯ ১৯:৫০

ধুনটে স্কুলছাত্রীকে অপহরণের পর ধর্ষণ, ধর্ষক গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া

ধুনটে স্কুলছাত্রীকে অপহরণের পর ধর্ষণ, ধর্ষক গ্রেফতার
অপিল উদ্দিন

বগুড়ার ধুনট উপজেলার ৭ম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে (১৩) অপহণের পর ধর্ষণের অভিযোগে অপিল উদ্দিন (২৫) নামে দুই সন্তানের জনককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

বৃহস্পতিবার রাতে জামালপুর জেলার ইসলামপুর থানার সাপধরি ইউনিয়নের চর দিগাই মন্ডলপাড়া এলাকা থেকে ওই ছাত্রীকে উদ্ধার ও ধর্ষক যুবককে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত অপিল উদ্দিন লালমনিরহাট জেলার কালিগঞ্জ থানার রুদ্রশ্বর গ্রামের নজির উদ্দিনের ছেলে।

জানা গেছে, ধুনট উপজেলার গোপালনগর ইউনিয়নের মহিশুরার গ্রামের জনৈক এক ব্যক্তির মেয়ে গোপালনগর ইউএকে উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণির ছাত্রী। গত ১৬ আগস্ট ওই স্কুলছাত্রী পাশ্ববর্তী কাজিপুর থানা এলাকায় ফুফুর বাড়িতে বেড়াতে যাওয়ার পথে নিখোঁজ হয়। এঘটনায় ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে ধুনট থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) দায়ের করেন। 

এর পরপরই বগুড়া জেলা পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞার নির্দেশনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গাজিউর রহমান ও ধুনট থানার ওসি ইসমাইল হোসেনসহ সঙ্গীয় ফোর্স ওই ছাত্রীকে উদ্ধারে মাঠে নামে। তারা কখনও ভোটার তালিকা হালাগাদ বা কখনো ডেঙ্গু প্রতিরোধ টিমের সদস্য পরিচয়ে বিভিন্ন এলাকায় ওই ছাত্রীকে উদ্ধার ও অপহরণকারীকে গ্রেফতারে অভিযান চালায়।

ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইসমাইল হোসেন জানান, মোবাইল ফোনের মাধ্যমে প্রেমের ফাঁদে ফেলে নাবালিকা স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করে অপিল উদ্দিন। এরপর সে ওই ছাত্রীকে বিভিন্ন এলাকায় তার আত্মীয়র বাড়িতে আটকে রেখে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে। পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত অপিল উদ্দিন ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছেন। পরে ওই ছাত্রীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য বগুড়ায় পাঠানো হয়েছে। এঘটনায় গ্রেফতারকৃত অপিল উদ্দিনসহ অজ্ঞাত ৪/৫ জনের বিরুদ্ধে ধুনট থানায় মামলা দায়ের হয়েছে বলেও জানান তিনি। 


বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য