শিরোনাম
প্রকাশ : ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ২১:২১

গৌরনদীতে মাদ্রাসা ছাত্রীকে আটকে রেখে ‘ধর্ষণ’

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল

গৌরনদীতে মাদ্রাসা ছাত্রীকে আটকে রেখে ‘ধর্ষণ’
প্রতীকী ছবি

বরিশালের গৌরনদী উপজেলায় একটি মাদ্রাসার সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রীকে (১৩) অপহরণের পর দুই দিন আটকে রেখে ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠেছে। এছাড়া একই উপজেলার আরেক মাদ্রাসার শিশু শ্রেণির এক ছাত্রীকে (৬) ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় রবিবার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে গৌরনদী থানায় পৃথক দুটি মামলা হয়েছে। 

পুলিশ অপহরণ ও ধর্ষণ মামলার আসামি আব্দুস সালাম হাওলাদারকে (৩৮) গ্রেফতার করেছে। আর ধর্ষণ চেষ্টার অপর মামলার আসামি আবু বক্কর বেপারীকে (৫২) গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। 

ধর্ষণ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই কেএম আব্দুল হক জানান, সপ্তম শ্রেণির ছাত্রীর সঙ্গে উপজেলার উত্তর বিজয়পুর গ্রামের আব্দুস সালাম হাওলাদার (৩৮) পরিচয় গোপন রেখে মুঠোফোনে প্রেমের নামে প্রতারণা করে আসছিল। 

গত শুক্রবার সালাম এক বন্ধুর সহযোগিতায় ওই ছাত্রীকে অপহরণ করে। পরে ওই ছাত্রীকে বরিশাল শহরে ২ দিন আটকে রেখে ধর্ষণ করেন তিনি। এ ঘটনায় ধর্ষিতার মা বাদী হয়ে অভিযুক্ত সালাম ও তার এক বন্ধুকে আসামি করে রবিবার বিকেলে থানায় অপহরণ ও ধর্ষণের মামলা দায়ের করেন। 

পুলিশ আজই উত্তর বিজয়পুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে সালামকে গ্রেফতার করেছে। তার বন্ধুকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে জানান এসআই হক। 

এদিকে, গত ১৭ সেপ্টেম্বর বিকেলে গৌরনদীতে মাদ্রাসার শিশু শ্রেণির এক ছাত্রীকে আবু বক্কর বেপারী পার্শ্ববর্তী একটি পরিত্যক্ত ঘরে ডেকে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। এ ঘটনায় ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করেন তার মা। অভিযুক্ত আসামিকে গ্রেফতারসহ আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার কথা বলেন তদন্ত কর্মকর্তা এসআই আব্দুল হক। 

বিডি প্রতিদিন/এমআই


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর